টপিকঃ সরকারী স্কুল ও কলেজ করা হবে প্রতিটি উপজেলায়

উন্নত ও স্বনির্ভর বাংলাদেশ গড়তে বর্তমান সরকার শিক্ষাকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়েছে ।২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ হবে নিরক্ষরমুক্ত দেশ । অগ্রগতির এ পথে যাতে কোন বাধার সৃষ্টি না হয় সেজন্য সবাইকে সোচ্চার থাকতে হবে। সরকারের দেয়া সুবিধা কাজে লাগিয়ে নিজেদের শিক্ষিত, স্বাবলম্বী হিসেবে গড়ে তুলতে  অভিভাবকসহ শিক্ষার্থীদের এগিয়ে আসতে হবে ।২০২১ সালের মধ্যে মধ্যম আয়ের বাংলাদেশ এবং ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত সমৃদ্ধ বাংলদেশ গড়ে তোলার অঙ্গীকার রয়েছে বর্তমান সরকারের ।শিক্ষা ব্যতীত এ অর্জন কখনও সম্ভব হবে না। কারণ জ্ঞানই সব থেকে বড় সম্পদ। বর্তমান সরকার সে জ্ঞানার্জনেই সুযোগ সৃষ্টি করে দিচ্ছে। সবার উচিত এ সুযোগকে কাজে লাগিয়ে দেশকে আরও এগিয়ে নিয়ে যাওয়া। যদি কারও নিয়ত থাকে- হ্যাঁ এটা আমি করব, তাহলে পথও নিশ্চয়ই খুঁজে পাওয়া যায়। সীমিত সম্পদ দিয়েই আমাদের যাত্রা শুরু। কিন্তু বাংলাদেশকে এখন আর কেউ দরিদ্র বলে অবহেলার চোখে দেখতে পারে না। দুর্ভিক্ষ ও দুর্যোগের দেশ বলে অবহেলা করতে পারে না।শিক্ষার্থীদের মনোযোগ দিয়ে লেখাপড়া করতে হবে। নিজের পায়ে দাঁড়াতে হবে, দেশকে ভালভাবে গড়ে তুলতে হবে।   ধন-সম্পদ একদিন শেষ হয়ে গেলেও লেখাপড়ার কোন ক্ষয় নেই। এ সম্পদ কেউ কোনদিন কেড়ে বা ছিনতাই করে নিতে পারবে না। প্রতিটি উপজেলায় একটি সরকারী স্কুল, সরকারী কলেজ করার সিদ্ধান্ত  নিয়েছে বর্তমান সরকার  এবং যেসব এলাকায় কোন সরকারী স্কুল-কলেজ নেই তারও একটা তালিকা করা হয়েছে ।

Re: সরকারী স্কুল ও কলেজ করা হবে প্রতিটি উপজেলায়

মাধবী লিখেছেন:

শিক্ষা ব্যতীত এ অর্জন কখনও সম্ভব হবে না। কারণ জ্ঞানই সব থেকে বড় সম্পদ। বর্তমান সরকার সে জ্ঞানার্জনেই সুযোগ সৃষ্টি করে দিচ্ছে। সবার উচিত এ সুযোগকে কাজে লাগিয়ে দেশকে আরও এগিয়ে নিয়ে যাওয়া।

http://www.sylhettoday24.com/images/new … 22398.jpeg
বর্তমান কারিকুলামে পাঠ্যবই লেখার পদ্ধতি ভালো না বলে মন্তব্য করেছেন অধ্যাপক ড. মুহম্মদ জাফর ইকবাল। শিক্ষার্থীদের বোঝার ক্ষমতার তুলনায় তা বেশ কঠিন বলে মনে করেন তিনি। উদাহরণ টেনে তিনি বলেছেন, ‘নবম শ্রেণির বিজ্ঞানের বই আমি নিজে বুঝে উঠতে পারিনি, বাচ্চারা কীভাবে বুঝবে?’