টপিকঃ খলিলনগরে পুনর্নির্বাচন ও ভোট পুনর্গণনার দাবি আ.লীগ প্রার্থীর

উৎসব মুখর পরিবেশে নির্বাচন হলেও, এই নির্বাচনে বিভিন্ন মিডিয়া বলছে, মানুষ নিহত হয়েছে ১১-১৩ জন, নির্বাচন সুষ্ঠ হয়েছে বলে আওয়ামী লীগের সমর্থকরা বেজায় খুশী অন্যদিকে নিজেদের প্রার্থী পুন নির্বাচন দাবি করে  sleeping sleeping sleeping sleeping sleeping sleeping

সাতক্ষীরার তালা উপজেলার খলিলনগর ইউনিয়ন পরিষদে (ইউপি) গত মঙ্গলবার নির্বাচনে ব্যাপক কারচুপির অভিযোগে একটি কেন্দ্রে পুনর্নির্বাচন ও দুটি কেন্দ্রের ভোট পুনর্গণনার দাবি জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের পরাজিত প্রার্থী প্রণব ঘোষ।
গতকাল বুধবার সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে প্রণব ঘোষ এ কথা বলেন। এ সময় তিনি নৌকা প্রতীকের বিরুদ্ধে কাজ করার অভিযোগে তালা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ঘোষ সনৎ কুমারকে দল থেকে বহিষ্কারের দাবি জানান।
প্রণব ঘোষ বলেন, ২০১৫ সালে তিনি উপজেলা আওয়ামী লীগের কাউন্সিলে সাধারণ সম্পাদক পদে ঘোষ সনৎ কুমারের বিরুদ্ধে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। সেই থেকে ঘোষ সনৎ কুমার তাঁর ও তাঁর কর্মীদের ওপর অত্যাচার-জুলুম শুরু করেন। এর জের ধরে সনৎ কুমার ইউপি নির্বাচনে দলীয় প্রতীক নৌকার বিরুদ্ধে উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক আজিজুর রহমান রাজুকে দাঁড় করিয়ে দেন। ঘোষ সনৎ কুমার ষড়যন্ত্র করে তাঁকে ১৩৮ ভোটে পরাজিত করেছেন।
ঘোষ সনৎ কুমার বলেন, তাঁর বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ সবই অসত্য। তিনি আওয়ামী লীগের প্রার্থী প্রণব ঘোষের পক্ষে কাজ করছেন।
সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে প্রণব ঘোষ বলেন, বিদ্রোহী প্রার্থী রাজুর বাড়ির ১০০ গজ দূরে নলতা ভোটকেন্দ্র। এ কেন্দ্রের ৪ নম্বর বুথে রাজুর ভাই ইমরান প্রকাশ্যে নারীদের কাছ থেকে ব্যালট ছিনিয়ে নিয়ে সিল মেরে বাক্স ভর্তি করেছেন। বেলা ১১টার দিকে মাছিয়াড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে রাজুর এজেন্ট আজিজ গাজী প্রকাশ্যে ব্যালট ছিনতাই করে সিল মারার সময় জনগণ তাঁকে আটক করলেও পুলিশ অদৃশ্য কারণে গ্রেপ্তার করেনি। এসব বিষয় প্রিসাইডিং কর্মকর্তা ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) কাছে অভিযোগ দিলেও তাঁরা ব্যবস্থা নেননি। তিনি নলতা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের ফলাফল বাতিল করে পুনর্নির্বাচন এবং মাছিয়াড়া ও হরিশচন্দ্রকাটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের ফলাফল স্থগিত করে ভোট পুনর্গণনার দাবি জানান।
রিটার্নিং কর্মকর্তা ও ইউএনও মনোরঞ্জন বিশ্বাস বলেন, ফলাফল ঘোষণার সময় প্রণব ঘোষ লিখিত অভিযোগ এনেছিলেন। তখন আর কী করার থাকতে পারে।
এ বিষয়ে কথা বলার জন্য নির্বাচনে জয়ী আজিজুর রহমান রাজুর মুঠোফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলে সেটি বন্ধ পাওয়া যায়।

প্রথম আলো -http://www.prothom-alo.com/bangladesh/a … C%E0%A6%BF

Re: খলিলনগরে পুনর্নির্বাচন ও ভোট পুনর্গণনার দাবি আ.লীগ প্রার্থীর

হুম

জাযাল্লাহু আন্না মুহাম্মাদান মাহুয়া আহলুহু......
এই মেঘ এই রোদ্দুর