টপিকঃ শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

রাজধানী ব্যাংকক

পরের দিন সকাল সকাল ব্যাগ বোচকা বেধে তৈরি হয়ে নিলাম । আজ যাব ব্যাংকক । নাস্তা খেয়ে বের হয়ে গেলাম ,গাড়ির বাবস্থা ট্যুর অপারেটর করেছিল তাই কোন চিন্তা ছিলনা  । পাতায়া থেকে ব্যাংকক যেতে সময় লাগে মাত্র  দুই থেকে আড়াই  ঘন্টা । সুকুম্ভিতের হোটেল অ্যাম্বাসেডর এ আমাদের রিজারভেশন ছিল। সকাল সোয়া দশটা নাগাদ আমরা পউছে গেলাম হোটেলে । চেক ইন এর ফর্মালিটি সেরে সোজা রুমে চলে গেলাম । কেয়া আপু আমাদের সাথে না উঠে নিচেই থেকে গেল সারাদিনের প্যাকেজ ঠিক করার জন্য ।

আধা ঘন্টার মত বিশ্রাম নিয়ে আমরা বের হয়ে গেলাম ঘুরতে । আমাদের প্রথম গন্তব্য গ্র্যান্ড প্যালেস ।
কটকটে গরমে আমরা পৌঁছালাম  গ্র্যান্ড প্যালেসে । 


https://scontent-cdg2-1.xx.fbcdn.net/hphotos-xtf1/v/t1.0-9/11401092_10207204533693955_4689462829784476495_n.jpg?oh=508f3db41773d25dd83386fe9968eec8&oe=55F0079C


সূর্যের আলোর তীব্রতায় সব কিছুই চকচক করছিল । আহা !! গল্প উপন্যাসে কত পড়েছি রাজার বাড়ির কথা। যেখানে চিলে কোঠায় থাকে রূপসী রাজকন্যা আর সিপাই রা সব দোর পাহাড়া দেয় । অচিন দেশের রাজারকুমার টগবগ টগবগ  ঘোড়ায় চেপে আসে রাজকুমারীর খোঁজে । এখানে রাজার বাড়িটা বিশাল হলেও সিপাই গুলো সব আধুনিক  আর না দেখলাম রাজা না তাঁর কন্যা বা পুত্র । শুধু পর্যটকের ছড়াছড়ি ।

https://scontent-cdg2-1.xx.fbcdn.net/hphotos-xta1/v/t1.0-9/11391395_10207204532533926_1594276568251773570_n.jpg?oh=59c5c85b0423a92a07cbec3fc93540ae&oe=56355144 


তবে প্রাসাদটা বেশ চমৎকার। গাছপালা ,মন্দির আর নানা রকম ফুলের বাগান আছে এই প্যালেস চত্বরে ।
এই প্যালেস ১৭৮২ সাল থেকে অফিশিয়ালি থাই রাজার বাসভবন । কি সুন্দর কারুকার্যময় সব দেয়াল ।


https://fbcdn-sphotos-a-a.akamaihd.net/hphotos-ak-xta1/v/t1.0-9/11391268_10207204532493925_5354270558883400417_n.jpg?oh=765847b8c53b9886adedd0e5126cab52&oe=5630686D&__gda__=1441294880_1c2f97a2e90c580357c6a646ff47078f


ডিমন রা সব পিলার আর ছাদের খিলান ধরে দাড়িয়ে আছে । 


https://fbcdn-sphotos-g-a.akamaihd.net/hphotos-ak-xap1/v/t1.0-9/10453383_10207074707448380_2196130858008826694_n.jpg?oh=783233fc0b3d67ae91b8160da571fb37&oe=5602714A&__gda__=1441183775_4f82e1b5912b6caaeec80c7d8defc02b


অনেকগুলো আলাদা আলাদা ভবন মিলেই গ্র্যান্ড প্যালেস । সব ভবনেই অস্ত্র শস্ত্র নিয়ে দাঁড়িয়ে আছে প্রহরী ।
https://fbcdn-sphotos-b-a.akamaihd.net/hphotos-ak-xfa1/v/t1.0-9/35060_1553188791937_6815083_n.jpg?oh=214e1892199fcd151465248882614b69&oe=560297A7&__gda__=1446267015_39ab5c5bc84730f8d89f5efbde532322



এর মাঝেই আছে আবার এমারেল্ড বুদ্ধার মন্দির ।  এর দেয়ালের নকশা গুলো দেখার মত । মনে হয় যেন খুলে নিয়ে যাই । একদম মিনা করা গহনার মত ।



https://scontent-cdg2-1.xx.fbcdn.net/hphotos-xfa1/v/t1.0-9/34756_1551869838964_5280269_n.jpg?oh=9a651146795c5a46cdf10004a3df4b88&oe=55F3F41B

ভিতরে এমারেল্ড বুদ্ধার মন্দিরের কাছে এক চমৎকার মিউজিয়াম আছে । ঘুরতে ঘুরতে এক ভবনের ছাদে দেখলাম তিনটা শ্বেতহস্তী । আসল না নকল  । 

https://scontent-cdg2-1.xx.fbcdn.net/hphotos-xat1/v/t1.0-9/11147884_10207074707888391_8785509330878787607_n.jpg?oh=972f8312c301014915781c3c9c42b6a7&oe=55FC2250



ভিতরটা পুরো ঘুরে দেখার জন্য যথেষ্ট সময় দরকার । কিন্তু সূর্য্যি মামার যন্ত্রণার বেশিক্ষণ থাকতে মন চাইছিল না । তারপরেও দেড় কি দুই ঘন্টা সময় নিয়েছিলাম আমরা । 
গ্র্যান্ড প্যালেস থেকে বের হয়ে আমরা হালকা স্নাক্স  আর  ড্রিঙ্কস খেয়ে নিলাম । পিপাসায় প্রাণ ছটফট করছিল ।

এরপর ছাও ফ্রায়া নদী ভ্রমনে গেলাম । ড্রাইভার বার বার জিজ্ঞাসা করছিল যে দেড় /দুই ঘন্টা সময় লাগবে ঘুরতে আমরা লাঞ্চ করব কি না । কিন্তু কেউ ক্ষুধা অনুভব না করায় পরে খাবার সিদ্ধান্ত নিলাম ।
ছাও ফ্রায়া নদীর তীরেই গড়ে উঠেছে ব্যাংকক শহর ,যেমন আমাদের বুড়িগঙ্গার তীরে ঢাকা ।  আমরা যেখানে থামলাম সেখানে অনেকগুলা ইঞ্জিন চালিত নৌকা আছে যা পর্যটকদের ঘুরানোর কাজ করে থাকে । আমরা দুই ঘন্টার জন্য একটা নৌকা ভাড়া করলাম মানে টিকেট কাটতে হল আর কি। ছাওনি দেয়া নৌকা তাই রোদ মাথায় লাগছিল না ।
দুই পাশে উঁচু উঁচু সব ভবন আর নদীতে ঢেউ ও ছিল যথেষ্ট । নদীর বাতাস আর পরিবেশ দুটোই বেশ লাগছিল ।


https://scontent-cdg2-1.xx.fbcdn.net/hphotos-xaf1/v/t1.0-9/37699_1553191872014_3783325_n.jpg?oh=818f254bdf1021d264ba96ebfaea9de9&oe=55FDFB46

দুই পাশে নদীর উপর ঘর। নদী থেকে দেখা যাচ্ছিলো রাজার গ্র্যান্ড প্রাসাদ ।

https://fbcdn-sphotos-g-a.akamaihd.net/hphotos-ak-xaf1/v/t1.0-9/38503_1551868038919_4396129_n.jpg?oh=3888339bfbaa6b1c3f4f6d3e5b1a2876&oe=55F8B81D&__gda__=1442727907_c16d7cbddc9c9afb736bf57ad99f1deb


ছোট ছোট নৌকায় করে থাই মহিলারা বিক্রি করছিল নানা রকম পণ্য । ভাসমান বাজার দেখতে বেশ লাগছিল । এক নৌকা থেকে আমরা কিনলাম পানি আর ফ্রেশ কিউই ফল । আমার ভাই এই ফল পছন্দ না করলেও আমাদের তিনজন এর এটা বেশ লাগে খেতে ।

হঠাত এক জায়গায় দেখলাম নদীর পানি অন্যান্য অংশের তুলনায় বেশ কাল। মাঝির কাছে জানলাম এটা ছাও   খাল । এখানে এসে মিশেছে ব্যাংকক শহর এর বর্জ্য কিন্তু কোন দুর্গন্ধ পেলাম না । এক ফোটা আবর্জনাও চোখে পড়ল না।
ওদের সুয়ারেজ বাবস্থাপনা আর ওয়াটার ট্রিটমেন্ট বাবস্থাপনা দেখে মুগ্ধ হয়ে গেলাম । ভাবলাম ইশ ! যদি আমাদের বুড়িগঙ্গা এমন হত !

ঘোরাফেরা শেষ করে নামলাম নৌকা থেকে । এবার লাঞ্চ করার পালা । যেখানে নামলাম তার উল্টো দিকেই আছে এক মুসলিম রেস্তরাঁ । যেখানে খেলাম ইন্ডিয়ান খানা । আমি যথেষ্ট ঝাল খাবার খাই তারপরও আমাদের সবার নাক মুখ লাল হয়ে চোখ দিয়ে পানি বের এল । ঝাল কাহাকে বলে ও কত প্রকার তা বুঝতে পেরে বের হয়ে এলাম । বেরিয়েই আইস ক্রিম । 

বেলা তখন চারটা পার হয়ে গেছে ,এবার গেলাম ওয়াট বা মন্দিরে । ওরা ওদের মন্দির মানে প্যাগোডা কে ওয়াট বলে। প্যাগোডা /ওয়াট  এ পৌছাতে পৌছাতে বিকেল  সাড়ে পাঁচটার কিছু বেশি ।

https://scontent-cdg2-1.xx.fbcdn.net/hphotos-xfa1/v/t1.0-9/11390198_10207204534053964_2132714244110124123_n.jpg?oh=ac405e9e81cb2fd01261e71f2c862a2e&oe=56310710



এসময় প্যাগোডা /ওয়াট বন্ধ হয়ে যায় বলে ভিড়ভাট্টা তেমন ছিল না । 

https://fbcdn-sphotos-c-a.akamaihd.net/hphotos-ak-xaf1/v/t1.0-9/38503_1551868118921_5647665_n.jpg?oh=d1bad4e51d5ba7f5243e0cb040a0b136&oe=55F12034&__gda__=1446218186_497fe0a30c3c6691e75e2d63fb4f0f1e

বাইরে কয়েকজন মহিলা অনেক সুন্দর সুন্দর অর্কিড ,পদ্ম গোলাপ সহ  আরও নানা রকম ফুলের পশরা সাজিয়ে বসেছে ।

https://fbcdn-sphotos-g-a.akamaihd.net/hphotos-ak-xfa1/v/t1.0-9/11393221_10207204535814008_6382649200633207182_n.jpg?oh=539eafa8e4d8204913574cb220c55a0e&oe=55F9556D&__gda__=1441686656_9249c9a2a98f57d20785eea6ab241dcc


মন্দির এর পরিবেশ অনেক পরিচ্ছন্ন । চারপাশে মনে হয় যেন ফুলের মেলা।

https://fbcdn-sphotos-f-a.akamaihd.net/hphotos-ak-xtp1/v/t1.0-9/10151776_10207204535494000_4220548337664590172_n.jpg?oh=827d0aea2c52f12a037beb25f7f126e9&oe=55EDEE34&__gda__=1446329329_beb33499ec397a877732e92a33ab8a60


আমরা ওখানে কিছুখন থেকে চলে এলাম  লুম্ফিনি তে  ।  এখানে ব্যাংকক এর বিশাল নাইট মার্কেট বসে । দোকানপাট তখনও খুলে নাই ঠিক মত । তবে ফুটপাথের দোকানীরা বসে গেছে ।আটটার মধ্যে সব দোকান খুলে গেল ।
কি নাই এখানে । ইচ্ছে হচ্ছিল সব কিনে নিয়ে যাই । কেনাকাটা আপাতত শেষ করে গেলাম রাতের খাবার খেতে । নাইট মার্কেটের পাশেই এক চমৎকার জাপানিজ রেস্তরাঁয় ।
খাওয়া দাওয়া শেষ করে টুকটুক করে হোটেলে ফিরলাম কারন নাইট মার্কেটে পৌঁছেই গাড়ি ছেঁড়ে দিতে হয়েছিল ।                   ...................................................... (চলবে)

এক টুনিতে টুনটুনালো সাত রানির নাক কাঁটালো

লেখাটি CC by 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

চমৎকার পর্ব। শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ।

IMDb; Phone: Huawei Y9 (2018); PC: Windows 10 Pro 64-bit

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

এই পর্বটাও ব্যাপক ভাল্লাগসে thumbs_up
btw, আপনার জামালপুর ভ্রমণ নিয়ে একটা টপিক কবে পাচ্ছি? smile

ইট-কাঠ পাথরের মুখোশের আড়ালে,
বাধা ছিল মন কিছু স্বার্থের মায়াজালে...

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

সাবলিল ঝরঝরে বর্ননা, চমৎকার সব ছবি।
বর্ননার জন্য+

এখনো অনেক অজানা ভাষার অচেনা শব্দের মত এই পৃথিবীর অনেক কিছুই অজানা-অচেনা রয়ে গেছে!! পৃথিবীতে কত অপূর্ব রহস্য লুকিয়ে আছে- যারা দেখতে চায় তাদের নিমন্ত্রণ।

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

ঝকঝকে তকতকে ছবি, দারুন লিখেছেন।
খরচ কেমন হলো একটু আইডিয়া দিলে ভালো হয়।

You are the one who thinks that i didn't get the point, so do i think of you...what a coincidence!!

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

মন্তব্য আর + এর জন্য সব্বাইকে ধন্যবাদ । আর ছায়ামানব ,জামালপুরের ভ্রমণ ছিল কাজের ভ্রমণ ওর আবার কি পোস্ট দিব ??

এক টুনিতে টুনটুনালো সাত রানির নাক কাঁটালো

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

দারুন লেগেছে smile

One can steal ideas, but no one can steal execution or passion. - Tim Ferriss

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

দারুণ smile  thumbs_up

সব কিছু ত্যাগ করে একদিকে অগ্রসর হচ্ছি

লেখাটি CC by-nd 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

অপরিচিত  এবং    mizvibappa  দুজনকেই অনেক অনেক ধন্যবাদ ।  smile

এক টুনিতে টুনটুনালো সাত রানির নাক কাঁটালো

১০

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

চমৎকার সব ছবি আর সুন্দর বর্ণনার মাধ্যমে টপিকটি যেন পরিপূর্ণতায় ভরপুর।ধন্যবাদ টপিকটি শেয়ার করার জন্য smile

অন্যের কাছ থেকে যে ব্যবহার প্রত্যশা করেন আগে নিজে সে আচরন করুন।

লেখাটি CC by-nc 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত

১১

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

অনেক ভাল লাগলো  thumbs_up

আল্লাহ আমাকে কবূল করুন

১২

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

জারাহ এবং সেজান কে অনেক অনেক থ্যাংকস  smile

এক টুনিতে টুনটুনালো সাত রানির নাক কাঁটালো

১৩

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

দারুন লাগল আপি । খুব সুন্দর ছবিগুলো

জাযাল্লাহু আন্না মুহাম্মাদান মাহুয়া আহলুহু......
এই মেঘ এই রোদ্দুর

১৪

Re: শ্যাম রাজার দেশে (চতুর্থ পর্ব )

ছবি-Chhobi লিখেছেন:

দারুন লাগল আপি । খুব সুন্দর ছবিগুলো



থ্যাংকস ছবি আপা  smile

এক টুনিতে টুনটুনালো সাত রানির নাক কাঁটালো