সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন Jol Kona (১৩-০৩-২০১৪ ০০:১৫)

টপিকঃ ইস্পিশাল মালাই চা!

রাস্তার ধারে বসে মালাই চা খেয়ে যে মজাআআআআআআ!!  dream
সেটা ঘরের মালাই চায়ের মধ্যে নাই! উহু!! একদম  shame নাই!

কাআআ-রওও-নন হইলোওওওওওওও রাস্তার ধারে যেনতেন পানি; ধুলা-বালি মিক্সড থাকে বলে সেটার টেইস্ট একটু আলাদাই হয় wink আর ঘরে এর কিছু থাকে না বলে সেটার টেইস্টও একটু আলাদাই হয়!  tongue_smile  hehe

আচ্ছা আচ্ছা আর ঘ্যান ঘ্যান না করে রেসেপি দিয়ে দেই। নিজেরা নিজেরা  বানায় খেয়ে ফেলেন! tongue মনে হয় না খুব বেশি পার্থক্য করতে পারবেন!
ঠিকঠাক মত যদি করতে পারেন! আর একটা মাটির পেয়ালা জোগার করে তাতে খেতে পারলে খুশির চোটে স্বাদ দ্বিগুণ এমনিতেই হয়ে যাবে  love 


https://fbcdn-sphotos-e-a.akamaihd.net/hphotos-ak-ash3/t1/1901157_439870689480246_1698639656_n.jpg

চা বানানোর উপকরণঃ

(কয়েক জনের জন্য)
১) দুধ- ৩ কাপ
২) চা পাতা- ৪ টেবিল চামচ কিংবা ৪টা টি ব্যাগ
৩) চিনি- স্বাদমত
৪) ডিমের কুসুম- ১টি কুসুমের অর্ধেক/
৫) বাটার বিস্কুট - গুড়া
৬) এলাচ (ইচ্ছা)- ১ টি
৭) জাফরানের দানা (ইচ্ছা)- এক চিমটি
৮) দুধের সর বা মালাই- ইচ্ছামত

নোটঃ
#এলাচ আর জাফরানদানা ঐচ্ছিক হলেও ব্যবহার করে দেখতে পারেন! অন্যরকম স্বাদ পাবেন।

#যারা ডিমের কুসুম দিতে চান না, তারা ভালো কোনও বাটার বিস্কুটের গুঁড়া ব্যবহার করবেন। বিস্কুট যেন একদম টাটকা হয়।

প্রনালীঃ

১) দুধের সাথে ডিমের কুসুম বা বিস্কুটের গুঁড়া ভালো করে মিশিয়ে দিন। তারপর চুলায় বসিয়ে জ্বাল দিন।
২) দুধ যেন উপচে না পড়ে। দুধ ফুটে উঠলে এলাচ দানা আর জাফরান ছড়িয়ে দিবেন ।
৩) এবার চা পাতা দিয়ে জ্বাল দিতে থাকেন। জাফরান দানার কারণে সুন্দর একটা গাড় কমলা- বাদামী রঙ আসবে। চা যত কড়া খেতে চান তত বেশি সময় জ্বাল দিবেন।
৪) চা ঢালার আগেই প্রতিটি কাপে অল্প অল্প করে মালাই দিয়ে দিন। এবার চা ঢালুন। তবে একবারে দিয়ে  দিবেন না। এতে চায়ের কাপে মালাইয়ের ফেনা উঠবে না! ফেনা তুলবার পদ্ধতি নির্ভর করবে আপনার ঢালবার কৌশলের উপরে।

নোটঃ
#অনেকেই ভাবেন যে চায় ঢালার পর মালাই ছড়িয়ে দেয়া উচিত। এতে মালাইয়ের স্বাদ আর থাকে না!

#চা ঢালবার কৌশলঃ
ছাঁকনিটা একটু ওপরে ধরুন, তারপর সরু ধারায় চা ঢালুন। সরু ধারায় চা গিয়ে যখন কাপের মালাইয়ের ওপরে পড়বে, আস্তে আস্তে কাপ মালাইয়ের ফেনা চায়ের সাথে সাথে উঠে আসবে! ঠিক হোটেলের মতই!!

#এলাচ আর জাফরান বাদ দিলে নরমাল মালাই চা হবে!  hehe


https://fbcdn-sphotos-g-a.akamaihd.net/hphotos-ak-ash3/t1/72971_439863562814292_781429753_n.jpg


নেট থেকে নেয়া!



এইবার, ঝটপট বানিয়ের গরম গরম এককাপ হাতে নিয়ে সোজা বারান্দায় বা খোলা জানালার পাশে বসে বা দাঁড়িয়ে; বাইরের মনোরম দৃশ্য দেখতে দেখতে আর এক চুমুক করে খেতে খেতে, উপভোগ করুন!  hehe tongue

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

ধন্যবাদ শেয়ার করার জন্য .

নিবন্ধিতঃ১১/০৩/২০০৯ ,নিয়মিতঃ১০/০৩/২০১১, প্রজন্মনুরাগীঃ১৯/০৫/২০১১ ,প্রজন্মাসক্তঃ২৬/০৯/২০১১,
পাঁড়ফোরামিকঃ২২/০৩/২০১২, প্রজন্ম গুরুঃ০৯/০৪/২০১২ ,পাঁড়-প্রাজন্মিকঃ২৭/০৮/২০১২,প্রজন্মাচার্যঃ০৪/০৩/২০১৪।
প্রেম দাও ,নাইলে বিষ দাও

সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন Jol Kona (১২-০৩-২০১৪ ০১:২০)

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

Jems Bond লিখেছেন:

ধন্যবাদ শেয়ার করার জন্য .

smile আচ্ছা!

উম্ম!! ৫ বছর পূর্ণ করলেন ফোরামে! smile
একটা স্পেশাল পোস্ট আশাই করা যায় আপনার কাছ থেকে! অনেক দিন  হল কিছু লিখেন না আপনি!

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

চায়ে ডিমের কুসুম? মাথা-মুথা ঠিক আছে তোমার?  hehe এ অনেক ঝামেলা! তার থেকে সব মিশিয়ে মাইক্রোওয়েভ অভ্যনে দিয়ে দিলে কাজ শেষ!

কিছু বাধা অ-পেরোনোই থাক
তৃষ্ণা হয়ে থাক কান্না-গভীর ঘুমে মাখা।

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

উদাসীন লিখেছেন:

চায়ে ডিমের কুসুম? মাথা-মুথা ঠিক আছে তোমার?  hehe

জী মূল রেসেপিতে ডিম দেয়! সাথে বিস্কুটের গুড়াও দেয়!

আমি শুধু বিস্কুটের গুড়া দিয়ে ট্রাই করছি!! ডিম দেবার মত রুচি আমার হয় নাই!  sick
এই  ডিমের কথা আমাকে যে খাওয়াইসে; রেসেপি দেবার আগে, সে বললে; আমি সেই চা-ই খাইতাম না!  worried

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

অসাধারণ তো  hug এই জিনিশটা আমার কাছে সবসময় ইন্টারেস্টিং বলেই মনে হয়, যদিও খুব একটা চা খাওয়া হয় না আমার smile

   নেই, আছে এবং নৈবচ নৈবচ . . . . .
   দেশ, দশ, দুনিয়া তথা বিশ্ব ব্রম্মান্ড হইতে নহে ষাইফ ঋাষেল আপাতত ফেসবুক হইতে আনা গাইয়েবুন

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

রাংগামাটিতে নাকি লাল ইটা পাওয়া যায় , তার গুড়া দিলে আরো টেস্ট হবে

নিবন্ধিতঃ১১/০৩/২০০৯ ,নিয়মিতঃ১০/০৩/২০১১, প্রজন্মনুরাগীঃ১৯/০৫/২০১১ ,প্রজন্মাসক্তঃ২৬/০৯/২০১১,
পাঁড়ফোরামিকঃ২২/০৩/২০১২, প্রজন্ম গুরুঃ০৯/০৪/২০১২ ,পাঁড়-প্রাজন্মিকঃ২৭/০৮/২০১২,প্রজন্মাচার্যঃ০৪/০৩/২০১৪।
প্রেম দাও ,নাইলে বিষ দাও

সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন Jol Kona (১২-০৩-২০১৪ ০১:৩৯)

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

RUSSEL13 লিখেছেন:

অসাধারণ তো  hug এই জিনিশটা আমার কাছে সবসময় ইন্টারেস্টিং বলেই মনে হয়, যদিও খুব একটা চা খাওয়া হয় না আমার smile

এই জন্য তো রেসেপিটা খুঁজে বের করলাম  cool tongue
কিন্তু ডিমের কথা শুনে!  worried চায়ে ভিতরে ডিম!  dontsee

উপায় বের হয়ে গেল! tongue ডিম বাদ দিয়ে বিস্কুট গুড়া! big_smile । ধন্যবাদ ভাইয়া! টপিকে ঢু মেরে যাবার জন্যে!   cool


Jemsbond লিখেছেন:

রাংগামাটিতে নাকি লাল ইটা পাওয়া যায় , তার গুড়া দিলে আরো টেস্ট হবে

mad রাঙ্গামাটি থেকে লাল ইটা আনায় ,বাহরাইন পাঠায় দেই  আপনার ঠিকানায়! ঠিক আছে!
আপনি এটা বানিয়ে তাতে লাল ইটাগুড়া দিয়ে খেয়ে আমাদের টেইস্টটা বইলেন! ঠিক্কাচ্ছে!   mad

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

বিস্কিটের মধ্যে সবচেয়ে ভালো হয় টোস্ট বিস্কুট দিলে।

আমার সকল টপিক

কোনো কিছু বলার নেই আজ আর...

১০

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

হুম! টোস্ট এর গুড়াই! টোস্ট-টা উল্লেখ্য করি নাই নাহ!  thinking

১১

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

আহা চা...   smile
কিন্তু বানানো তো খুব ঝামেলা দেখতেসি...  dream
আপু, চা বানায়ে আমারে দাওয়াত দিও...  big_smile

আমি রাবেয়া সুলতানা....

১২

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

পুরান ঢাকায় প্রায় সব নামকরা রেষ্টুরেন্টেই চাতে বিস্কুটের গুড়ো আর ডিমের কুসুম ব্যবহার করে। এতে চায়ের ফ্লেভার অনেকগুন বেড়ে যায়।

১৩

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

অনেক সুন্দর হয়েছে ধন্যবাদ।

১৪

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

চায়ের জন্য ক্রিম আছে সেটা দিয়েই চা অসাধারণ হয় এছাড়া কফির জন্য কফিমেট আছে।

  “যাবৎ জীবেৎ সুখং জীবেৎ, ঋণং কৃত্ত্বা ঘৃতং পিবেৎ যদ্দিন বাচো সুখে বাচো, ঋণ কইরা হইলেও ঘি খাও.

১৫

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

চা বানাইতেও রেসিপি লাগেনি
আন্ডা বাচ্চাও চা বানাইতে পারবো লল  big_smile big_smile

ময়দার হালুয়ার একটা রেসিপি দেও তো দেখি আমার সাথে মিলে কিনা  smile

জাযাল্লাহু আন্না মুহাম্মাদান মাহুয়া আহলুহু......
এই মেঘ এই রোদ্দুর

১৬

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

রাবেয়া সুলতানা লিখেছেন:

আহা চা...   smile
কিন্তু বানানো তো খুব ঝামেলা দেখতেসি...  dream
আপু, চা বানায়ে আমারে দাওয়াত দিও...  big_smile

shame এই রকম আবদার চলবে না উহু!! আপনি বানিয়ে সুন্দর এখানা ছবি তুলে দেন!   dream


ইলিয়াসদা লিখেছেন:

পুরান ঢাকায় প্রায় সব নামকরা রেষ্টুরেন্টেই চাতে বিস্কুটের গুড়ো আর ডিমের কুসুম ব্যবহার করে। এতে চায়ের ফ্লেভার অনেকগুন বেড়ে যায়।

হুম!! ডিম দেয়!  sick  sad


সমালোচক লিখেছেন:

চায়ের জন্য ক্রিম আছে সেটা দিয়েই চা অসাধারণ হয় এছাড়া কফির জন্য কফিমেট আছে।

এটা ক্রিম চা না hmm এটা মালাই চা!  neutral


ছবিপু লিখেছেন:

চা বানাইতেও রেসিপি লাগেনি
আন্ডা বাচ্চাও চা বানাইতে পারবো লল  big_smile big_smile
ময়দার হালুয়ার একটা রেসিপি দেও তো দেখি আমার সাথে মিলে কিনা

ময়দার হালুয়া!  thinking thinking আম্মা আসুক জিজ্ঞাসা করতেছি!

আন্ডা বাচ্চারা পারলেও এই ফোরামে কিছু বাচ্চা বুড়াবুড়ি আছে; ত্যানারা ডিম ভাজতে গিয়ে ডিমঘণ্ট বানিয়ে ফেলেন!  hehe
ইনারা চা বানাইতে গেলে কি অবস্থা হবে একটু চিন্তা করে দেখেন! সারা রান্নাঘরে আগুন লাগিয়ে তবেই বের হবে!  dontsee
এই জন্য সাইড টিপস সহ রেসেপি  wink

নাই ভাই লিখেছেন:

অনেক সুন্দর হয়েছে ধন্যবাদ।

smile আপনাকেও ধন্যবাদ! tongue  না পড়ে একটা কমনেট করার জন্য  big_smile

১৭

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

saffron এক্সপেন্সিভ এইটা দিয়া চা খাইতে থাকলে ফকির হওয়া লাগবে

Rhythm - Motivation Myself Psychedelic Thoughts

লেখাটি CC by 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত

১৮ সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন কালো বিড়াল (১৪-০৩-২০১৪ ১৪:২০)

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

মালাই চা না বানিয়ে মালাই কফি বানান। মানে ক্রীম কফি। সেটা বেশি মুখরোচক।

চায়ের সাথে বিস্কিটের গুড়া, ডিমের কুসুম এইসব দিলে চা আর চা থাকে না। অন্য কিছু হবে। চা হবে না।

চায়ের রেসিপি চান? বলছি,

http://rumanarjogot.files.wordpress.com/2011/05/rong-cha.jpg

একটা পাত্রে পানি গরম করুন। চিনি দিন তবে বেশি না। এবার পানিতে আদা কুচি দিন, লেমন গ্রাস (পাতা) দিন। পানি সিদ্ধ হলে শেষ মূহুর্তে চা পাতা (গুড়া) দিন। কিছুক্ষন চুলায় রাখুন। সুন্দর রং আসলে নামিয়ে নিন। চা পাতা দেয়ার পরে বেশিক্ষন চুলায় রাখবেন না। রাখলে চা তিতা হয়ে যায়। চুলা থেকে পাত্র নামিয়ে ছাকনী দিয়ে চেলে কাপে ঢালুন। এবার যার যার স্বাদ অনুযায়ী চিনি মেশান। পানি সিদ্ধের সময় যেহেতু আগেই চিনি দিয়েছেন তাই এবার আন্দাজমতো চিনি দিন যাতে খেয়াল থাকে চা যেনো শরবত না হয়ে যায়। এবার খান মজাদার চা। দুধ চা খাবেন না। এটা ভালো না। দুধ চায়ের চেয়ে কফি খান। সেটা ভালো।

১৯

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

কফিতে যে পরিমাণ ক্যাফেইন থাকে কালো বিল্লি ভায়া! সেই অনুয়ায়ী চা ভাল! আর যেটা দিলেন সেটা
হল লাল চায়ের অন্য একটা ভার্শন! কয়ক্টা পদ্ধতি আছে! অনেক ভাবে ট্রাই করা যায়! হা এটা ভাল!

আর রইল কথা জ্বাল দেয়া! এই চায়ে পাতা বেশিক্ষণ রাখতে নাই। কালার দেখে নামাতে হয়! সোনালি কালার এর মত হইলেই নামালেই হয়! গন্ধ সুন্দর থাকে আর হেলথী তো বটে!
আর দুধ চায়ে খালি পাতা দিয়ে ফুটাইলেই হয় না! ফুটানোর একটা মাত্রা আছে! আর চায়ে মধ্যে এক গাদা দুধ ঢেলে দিলেই হয় না! চায়ে মধ্যে চায়ের ফ্লেভার আসা চাই! নাইলে কিয়ের চা!

মানা করতে হইলে অনেকের সিগার-টাও ছেড়ে দেয়া উচিত!  সেটার কথা কেউ বলে না কেন! আমার চায়ের পিছে লাগছে কেনু!  angry খুব খ্রাপ!  shame

আপনার রেসেপির জন্য ধন্যবাদ smile অন্য কোন চায়ের রেসেপির সাথে  এটাও এ্যড করে দিবনে wink - বাই "কালো বিল্লু" ভাই দিয়ে wink   উখে!!!  big_smile

২০ সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন কালো বিড়াল (১৪-০৩-২০১৪ ১৪:৪৬)

Re: ইস্পিশাল মালাই চা!

Jol Kona লিখেছেন:

কফিতে যে পরিমাণ ক্যাফেইন থাকে কালো বিল্লি ভায়া! সেই অনুয়ায়ী চা ভাল! আর যেটা দিলেন সেটা
হল লাল চায়ের অন্য একটা ভার্শন! কয়ক্টা পদ্ধতি আছে! অনেক ভাবে ট্রাই করা যায়! হা এটা ভাল!

ভুল ধারনা। কফি দুধ চায়ের চেয়ে ভালো। কফি ও চা দুটোতেই ন্যাচারাল ক্যাফেইন থাকে যা স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী। একজন পূর্নবয়স্ক মানুষ প্রতিদিন ২০০ মিলিগ্রাম পর্যন্ত ক্যাফেইন গ্রহন করতে পারে শরীর সতেজ রাখার জন্য। এক কাপ কফিতে পাওয়া যায় ১০০ থেকে ১২০ মিলিগ্রাম। চায়ে পাবেন ৭০ মিলিগ্রাম। আপনি সকালে এক কাপ ও বিকালে এক কাপ কফি খেলে ক্যাফেইনের চাহিদা মিটে যায়। তাছাড়া কফির আরো অনেক গুন আছে।

আপনার জীবন বাঁচাতে পারে এক কাপ কফি

আপনার সকাল যদি এক কাপ কফি দিয়ে শুরু হয় আপনি অনেক বেশি কাজ করার উত্সাহ পেতে পারেন। আর যদি এটা আপনার অভ্যেস হয়ে থাকে তাহলে নির্ভয়ে আপনার হাত থেকে বিপদতারিনীর দাগা খুলে ফেলুন। কারণ ডাক্তাররা জানাচ্ছেন সারাদিনে দু-তিন কাপ কফি যদি খান, সারতে পারে স্কিন ক্যানসার, কমতে পারে আপনার হৃদয়ের দুর্বলতা আর লিভার থাকে সুস্থ। যার লিভার ঠিক, তার মন ঠিক। কারণ আপনি পেট ভরে খান, অম্বলের কৈফিয়ত কাউকে দিতে হবে না।

কিন্তু সব থেকে মজার বিষয়, বেশি কফি পান করলে আত্মহত্যা প্রবণতা অনেকাংশে কমে যায়। হার্ভাড স্কুল অফ পাবলিক হেলথ, তাদের পত্রিকা দ্য ওর্য়াল্ড জার্নাল অফ বায়োলজিক্যাল স্যাইকিয়াট্রি জানাচ্ছে যে সব মানুষ প্রতিদিন কফি পান করেন তাঁদের আত্মহত্যা করার প্রবণতা কম থাকে। তাঁরা ১৬ বছর ধরে দু লাখ মানুষের উপর গবেষণা করে দেখেছেন কফি মানুষের আত্মবিশ্বাস বাড়ায়। স্নায়ু অনেক বেশি সজাগ থাকে। মানুষের কাছে কফি নেশার বস্তু হলেও হতাশা, বুক ধরফর কমাতে সেরোটিন, ডোপামিনের মতো হরমনগুলিকে সক্রিয় করে তোলে। তখন আপনার ভাবনা, চিন্তাশক্তি করার ক্ষমতা সঠিক সময়ে ঠিকঠাক কাজ করে।

http://zeenews.india.com/bengali/entert … 14944.html

পারলে ক্রীম কফির একটা রেসিপি দিয়েন। আমি কফি বানাতে পারি কিন্তু  ক্রীম কফি বানাতে পারি না। ফেনা হয় না।