সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন RUSSEL13 (২৩-১২-২০১৩ ১০:২৩)

টপিকঃ সংবাদমাধ্যমগুলোর চাঁদাবাজি.... রুখে দাঁড়াবার এখুনি সময়!

অনলাইন পত্র পত্রিকাগুলোর মাঝে ব্যপক চাঁদাবাজ মনোভাব অনেক আগে থেকেই লক্ষ্যনীয়, আমিই সংবাদ এবং আমি যা বলবো সবাই সেটাই মানবে টাইপ অনুভূতি তাদের এই কাজে বাধ্য করেছে !!

এইসব ক্ষেত্রে সবার আগে এগিয়ে আছে banglanews24.com !!

বেশ কিছুদিন আগে এদের একটা লেখা ছিলো এরকম, ""ওয়ালটন মোবাইল নিম্নমানের! গ্রাহকদের ভোগান্তি!"" Waltonbd কে নিয়ে মোটামুটি তুলোধোনা করে ছেড়েছিলো সেই পোস্টে, আমি একটা ওয়ালটন মোবাইল কেনার কথা ভাবছিলাম তখন, পরে আর সেটা কিনি নাই, মজার ব্যপার পরের দিনই বাংলানিউজ২৪.কম আগের পোস্ট রিমুভ করে নতুন পোস্ট লিখে এরকম শিরোনামে ""ওয়ালটন স্মার্টফোন প্রিমো: চলছে হটকেকের মতো""

Banglalion কে নিয়ে তাদের লেখা পোস্ট ছিলো ""বাংলালায়ন তো বেহায়ালায়ন"" এবং ""প্রতারক কোম্পানি বাংলালায়নের শাস্তি দাবি"" এরপর অবশ্য যথারীতি এই পোস্টগুলোও মুছে ফেলা হয়েছে এবং এর পর থেকেই তাদের সাইটে বাংলালায়নের একটি চমৎকার ফ্ল্যাশ বিজ্ঞাপন অবস্থান নিয়েছে।

এর কিছুদিন পরে তারা Symphony এর মোবাইল নিয়ে লিখে এরকম একটা পোস্ট ""নিম্নমানের চায়না সেটে সিম্ফনি প্রতারণা"" !! এইবারো তারা তাদের আখের গুছিয়ে মুছে ফেলে এই পোস্টটিও।

তারা এভাবেই থামেনি, এইবার তারা লেগেছে Samsung Mobile এর পিছনে, তাদের এইবারের পোস্ট ""স্যামসাং সেটে ভোগান্তি, সেবায় হয়রানি"" এবং ""স্যামসাং হ্যান্ডসেটে ক্রেতারা ক্ষুদ্ধ"" !!

তাদের প্রতারণামূলক এই পোস্টগুলো অভিজ্ঞ ইন্টারনেট ব্যবহারকারীরা গুগল ক্যাশে খুঁজে পাবেন প্রমাণ হিসেবে এবং শুধু বাংলানিউজ ২৪ একাই নয় এরকম অবৈধ হাতিয়ার হাতে তুলে নিয়েছে আরো অনেক সংবাদ প্রতিষ্ঠান, ইদানিং লক্ষ্য করা যাচ্ছে চলচ্চিত্র নিয়েও একি ধরনের পোস্ট দিচ্ছে অনেক সংবাদমাধ্যম, সাম্প্রতিক সময়ে মুক্তি পাওয়া অসাধারণ এক বাংলা চলচ্চিত্রকে নিয়ে বেশ নিচু মনের মানসিকতার পরিচয় দেয়া একটা রিপোর্ট পড়েছিলাম, সেলিব্রেটিদের নিয়েও কম করা হয়নি !!

এর মুক্তি কোথায় ??

আমরা যদি আজকে থেকে এদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ না জানাই তাহলে আগামীকাল হয়তো এরা আমাকে বা আপনাকে নিয়েও লিখতে পারেন, আসুন একসাথে ষড়যন্ত্রের জাল ছিন্ন করি, আমাদের লড়াইয়ে আপনি থাকছেন তো ?

   নেই, আছে এবং নৈবচ নৈবচ . . . . .
   দেশ, দশ, দুনিয়া তথা বিশ্ব ব্রম্মান্ড হইতে নহে ষাইফ ঋাষেল আপাতত ফেসবুক হইতে আনা গাইয়েবুন

Re: সংবাদমাধ্যমগুলোর চাঁদাবাজি.... রুখে দাঁড়াবার এখুনি সময়!

গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে অনুসন্ধানী টপিকের জন্য সম্মাননা রইলো।

You'll never reach your destination if you stop and throw stones at every dog that barks.

Re: সংবাদমাধ্যমগুলোর চাঁদাবাজি.... রুখে দাঁড়াবার এখুনি সময়!

ঠিকই লিখেছেন।কিন্তু কি করা যাবে সবাই যে সুবিধাভোগী  sad

সব কিছু ত্যাগ করে একদিকে অগ্রসর হচ্ছি

লেখাটি CC by-nd 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: সংবাদমাধ্যমগুলোর চাঁদাবাজি.... রুখে দাঁড়াবার এখুনি সময়!

বসুন্ধরাগ্রুপের কাছে আর কি চান??

  “যাবৎ জীবেৎ সুখং জীবেৎ, ঋণং কৃত্ত্বা ঘৃতং পিবেৎ যদ্দিন বাচো সুখে বাচো, ঋণ কইরা হইলেও ঘি খাও.

Re: সংবাদমাধ্যমগুলোর চাঁদাবাজি.... রুখে দাঁড়াবার এখুনি সময়!

আবারও নতুন একটা দেখলাম আজকে -_-


http://webcache.googleusercontent.com/s … 48702.html


মালিকের সীমাহীন লোভ, নিম্নমানের ওষুধ বানাচ্ছে স্কয়ার!


কিছুক্ষণ পরেই তাদের এই পোস্ট গায়েব হয়ে গেছে !!!

   নেই, আছে এবং নৈবচ নৈবচ . . . . .
   দেশ, দশ, দুনিয়া তথা বিশ্ব ব্রম্মান্ড হইতে নহে ষাইফ ঋাষেল আপাতত ফেসবুক হইতে আনা গাইয়েবুন

Re: সংবাদমাধ্যমগুলোর চাঁদাবাজি.... রুখে দাঁড়াবার এখুনি সময়!

সব পোর্টালগুলা হচ্ছে ধান্দাবাজ। ধান্দাবাজী করেই তাদের জীবিকা নির্বাহ করতে হয়  thumbs_down

রাবনে বানাদি ভুড়ি :-(

Re: সংবাদমাধ্যমগুলোর চাঁদাবাজি.... রুখে দাঁড়াবার এখুনি সময়!

বাংলা নিউজ এতো বেশি এটা করছে, সবাই দেখছে, কিন্তু কেউ কেন কিছুই বলছে না sad

   নেই, আছে এবং নৈবচ নৈবচ . . . . .
   দেশ, দশ, দুনিয়া তথা বিশ্ব ব্রম্মান্ড হইতে নহে ষাইফ ঋাষেল আপাতত ফেসবুক হইতে আনা গাইয়েবুন