টপিকঃ আমদের দেশে ফেসবুক জোয়ার কোন দিকে?

এখন ইন্টারনেটের যুগ, ফেসবুকের যুগ। এই কথাটা প্রায়ই কোথাও না কোথাও পড়তে হয় অথবা শুনতে হয়। ফেসবুক ব্যাবহার করে না এমন ইন্টারনেট ব্যাবহারকারির সংখ্যা এখন নাই বললেই চলে। এই ফেসবুকের কল্যানে মানুষ সামাজিক হচ্ছে। কোন কিছু হলেই ফেসবুকে বার্তা দেয়া যায়। কারো জন্মদিনে এখন আর কষ্ট করে দেখা করে শুভেচ্ছা বিন্মিয় করা লাগে না । ফেসবুকে H.B.D লিখে দিলেই হয়। অনেক সময় এবং কিছু অর্থ বেচে যায়।
ইন্টারনেটের মাধ্যমে যোগাযোগ অথবা যেকোন বার্তা পাঠানোর জন্য আমার মাথায় আগে ই-মেইলের কথা আসে। তাই নিয়মিত এখনও মেইল চেক করা হয়। কিন্তু আমার আশে-পাশে অধিকাংশ মানুষকেই যোগাযোগের প্রধান মাধ্যম হিসাবে ফেসবুক ব্যাবহার করতে দেখি। যে কোন খবর দেয়ার জন্য তারা ফেসবুক ব্যাবহার করছে। আমার বন্ধুদের অনেকবার বলার পরও তারা আমাকে মেইল না করে এখনও ফেসবুকে বার্তা দেয়। আর আমার নিয়মিত ফেসবুক ব্যাবহার না করার ফলে আমি অনেক কিছু থেকে বঞ্ছিত হই। এই মুহুরতে একটা ঘটনা মনে পড়ছে। এইবার বড়দিনে আমার এক ছোট ভাই ফেসবুকের মাধ্যমে আমাকে বড়দিনের দাওয়াত দেয়। আমি সেই বার্তা দেখি বড়দিনের পরের দিন। যার কারনে আমি সময় মতো তার বাড়ি যেতে পারি নাই। তার বাড়ি না যাওয়ার জন্য পরবর্তীতে আমাকে কৈফিয়ত দিতে হয়। আরো মজার ব্যাপার কিছু দিন আগে সে আমার বাসায় আসে এবং কথায় কথায় আমি ইন্টারনেটে কি করি জানতে চায়। আমার উত্তরঃ ফোরাম বা ব্লগ পড়ি, টুকটাক চ্যাট করি , পেপার পড়ি, ডাউনলোড করি। এইবার সে ফোরাম, ব্লগ পড়ে শুধু শুধু সময় কেন নষ্ট করি এই নিয়ে অনেক কথা বলে আমি চুপ-চাপ শুনে যাই। আমার আর এক বন্ধু আছে ভাল প্রোগ্রামার। পি,এইচ,পি অনেক ভাল পারে তারও একই কথা আমি কেন ফোরামে ফালতু সময় দেই? এরকম কিছু বন্ধুদের আজো আমি ফোরামের/ব্লগের মজাটা বোঝাতে পারি নাই।
নব্য ইন্টারনেট ব্যাবহারকারি ইন্টারনেট বলতেই ফেসবুক চিনছে। প্রথমেই ফেসবুকে নিবন্ধন করে। বন্ধু বানানো শুরু করছে। যে কোন একটা নাম দিয়ে সার্চ দিচ্ছে। ভাল প্রফাইল, প্রোফাইল পিকচার দেখে "আমার ভাল বন্ধু হবে?" এই টাইপ এটা বার্তা দিয়ে বন্ধুত্বের অনুরোধ পাঠাচ্ছে। আমি একটা ব্যাপার বুঝি না। বন্ধুত্ব এইভাবে আয়োজন করে বলে-কয়ে হয়? হয়তো হয়।
ফেসবুক প্রেমিক/প্রেমিকারা তীর্থের কাকের মতো সারা দিন ফেসবুক খুলে বসে থাকে কখন হয়তো একটা তথাকথিত ভাল বন্ধু অনলাইনে আসবে তার সাথে কথা বলা যাবে।
ছেলেরা মেয়েদের পিছে ঘুরে মজা পাছে আর মেয়েরা ছেলেদের ঘুরিয়ে অথবা তারা নিজেও ঘুরে মজা পাচ্ছে। আমার এক বড় ভাই একটা কথা বলে "আগে রাস্তা-ঘাটে ছেলে-পেলে টাংকি মারতো/টিজ করতো এখন ফেসবুকে করে।"  ছোট ছোট ছেলে-মেয়েরা এখন ফেসবুক ব্যাবহার করছে এবং এই পরিবেশের সাথে পরিচিত হচ্ছে।  এরা বড় হলে কি হবে আমি ভেবেও কুল-কিনারা পাই না। বন্ধুদের সাথে ফেসবুকের মাধ্যমে আড্ডা দেয়া শিখছে।  বন্ধুরা এক সাথে বসে আড্ডা দেয়া, সুজগ পেলেই একটা ঘুসি মেরে বসা, চায়ের বিল কে দিবে সেইটা নিয়ে কিছুক্ষন চেচামেচি করা এই গুলা থেকে পুরোপুরি বঞ্ছিত হচ্ছে। খেলাধুলা করার কথা তো বাদই দিলাম। আমার দেখা কিছু মানুষ আছে যারা বাসা থেকে বের হয়ে সোজা ভার্সিটি এবং ক্লাস শেষে ভার্সিটি থেকে সোজা বাসায় ফিরে ফেসবুকের মাধ্যমে বন্ধুর প্রতি ভালবাসা প্রদর্শন করে। আমি এই সামাজিকতার পিছনে ভাল কোন দিক খুজে পাচ্ছি না।
ফেসবুক সাইটটা খারাপ নয়। ফেসবুকের মাধ্যমে সত্যিই পুরনো অনেক বন্ধুকে খুজে পাওয়া যায়। সুতরাং আমরা অপব্যাবহার না করি।
শুধু পড়লেখা করা যায় না। পড়ালেখার বাইরেও অনেক কিছু করতে হয়। সেই সময়টা সুস্থ বিনোদনের পিছনে ব্যয় করাটা ভাল নয় কি?

*এই ধরনের লেখা কোনদিন লিখি নাই। নিজের চিন্তা ভাবনা এই প্রথম লিখে প্রকাশ করলাম। চিন্তা ভাবনায় ভুল থাকতে পারে। ভুল গুলো খুজছি। খুজে পেলে শুধরানোর চেষ্টা করব।

'সমাজে সুস্থ বিনোদনের ব্যাবস্থা না থাকলে অসুস্থ বিনোদন হবেই।' :-সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী

Re: আমদের দেশে ফেসবুক জোয়ার কোন দিকে?

শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ।

এই গরমে স্বাক্ষর আর কি দিমু........

Re: আমদের দেশে ফেসবুক জোয়ার কোন দিকে?

আসলেই তাই, সবাই খালি ফেসবুক নিয়েই থাকে, আমি ফোরামে ৭-৮ বার না এলে আমার অস্থির অস্থির লাগে, আমার প্রায় সব বন্ধুদেরও এই অবস্থা  sad
ফেসবুক আমিও ব্যাবহার করি কিন্তু সেটা সবার সাথে যোগাযোগ রাখার জন্য, গত ২ মাসে আমি মাত্র একজনকে ফ্রেন্ড রিকুয়েস্ট পাঠাইছি যেখানে আমার বন্ধুরা প্রায় সব গনহারে ফ্রেন্ডরিকোয়েস্ট পাঠাইয়া একের অধিক ব্যানৌষধ ভক্ষন করিয়াছে  big_smile

Re: আমদের দেশে ফেসবুক জোয়ার কোন দিকে?

ধন্যবাদ শেয়ার করার জন্য।

Domain Registration | Hosting Solution | Web Development
99.9% Uptime Guarantee | 24/7 Live Support | SSD Server.
Best Domain Hosting Company in Bangladesh

রাজিব আহসান'এর ওয়েবসাইট

লেখাটি GPL v3 এর অধীনে প্রকাশিত

সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন সাইদুল ইসলাম (০৮-০৬-২০১১ ০৯:৩০)

Re: আমদের দেশে ফেসবুক জোয়ার কোন দিকে?

আশিফ শাহো লিখেছেন:

আসলেই তাই, সবাই খালি ফেসবুক নিয়েই থাকে, আমি ফোরামে ৭-৮ বার না এলে আমার অস্থির অস্থির লাগে, আমার প্রায় সব বন্ধুদেরও এই অবস্থা  sad
ফেসবুক আমিও ব্যাবহার করি কিন্তু সেটা সবার সাথে যোগাযোগ রাখার জন্য, গত ২ মাসে আমি মাত্র একজনকে ফ্রেন্ড রিকুয়েস্ট পাঠাইছি যেখানে আমার বন্ধুরা প্রায় সব গনহারে ফ্রেন্ডরিকোয়েস্ট পাঠাইয়া একের অধিক ব্যানৌষধ ভক্ষন করিয়াছে  big_smile

এবং যেখানে আমার ফেইসবুক ফ্রেন্ড সংখ্যা গত কয়েক বছর ধরে ব্যাবহার করে ও  ৮০ জন হল।   big_smile

۞ بِسْمِ اللهِ الْرَّحْمَنِ الْرَّحِيمِ •۞
۞ قُلْ هُوَ اللَّهُ أَحَدٌ ۞ اللَّهُ الصَّمَدُ ۞ لَمْ * • ۞
۞ يَلِدْ وَلَمْ يُولَدْ ۞ وَلَمْ يَكُن لَّهُ كُفُوًا أَحَدٌ * • ۞

Re: আমদের দেশে ফেসবুক জোয়ার কোন দিকে?

যখন আমার ঝিপিতে এস.এম.এস আসে যে অমুক লোক আমাকে ফ্রেন্ড হিসেবে যোগ করেছে তখন big_smile তখন ফেসবুকে লগইন করে সে পরিচিত হলে অ্যাকসেপ্ট করি। এরপর লগআউট। তবে প্রজন্মতে আসাটা মাত্রাতিরিক্ত হয়ে যাচ্ছে। প্রায় সারাদিনই প্রজন্মের পেজ খোলা থাকে sad এটাকে কমাতে হবে

Re: আমদের দেশে ফেসবুক জোয়ার কোন দিকে?

বাংলাদেশের জন্য ফেইসবুক আর্শীবাদ সরুপ!! এই ফেইসবুকের কল্যানে অনেকেই ইন্টারনেটের ব্যাবহার শিখছে। ইন্টারনেটের প্রয়োজনীয়তা বাড়ছে!  এই ট্রাফিক বাড়াটা আসলেই খুব দরকার ছিল।

জয়তু, ফেসবুক। অনেকদিন বেচে থাক বাবা!  clap

তামিম৬৯'এর ওয়েবসাইট

লেখাটি CC by-nc 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: আমদের দেশে ফেসবুক জোয়ার কোন দিকে?

আসলেই . ফেসবুক থাকার কারনে অনেক উপকার হয়েছে .. যখন কাজে বিজি থাকি তখন মোবাইল অফ করে দেই কিন্তু কম্পিউটারে কাজ করি বলে ফাসবুক টা অন রাখি .. big_smile তখন ফাবুকেই মিসকল পাই .. big_smile আবার দেশে ও সবার সাথে ফ্রি তে যোগাযোগ রয়েছে .. আজকে কে কয়টা মুরগি চুরি করে ভুনা খিচুরি খেল কে কয়টা ডাব চুরি করলো big_smile কে ছেকা খেল big_smile সব বন্ধু বান্ধবের থেকে এগুলা পাই ... মনে হয় দেশেই আছি .. smile

নাবালক'এর ওয়েবসাইট

লেখাটি CC by 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: আমদের দেশে ফেসবুক জোয়ার কোন দিকে?

কারো পৌষ মাস, কারো সর্বনাশ। roll

Flickr     500px    Facebook     SRS    Twitter

শিমুল১৩'এর ওয়েবসাইট

লেখাটি CC by-nc-nd 3. এর অধীনে প্রকাশিত

১০ সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন শুভ (০৯-০৬-২০১১ ০১:৫৭)

Re: আমদের দেশে ফেসবুক জোয়ার কোন দিকে?

তামিম৬৯ লিখেছেন:

বাংলাদেশের জন্য ফেইসবুক আর্শীবাদ সরুপ!! এই ফেইসবুকের কল্যানে অনেকেই ইন্টারনেটের ব্যাবহার শিখছে। ইন্টারনেটের প্রয়োজনীয়তা বাড়ছে!  এই ট্রাফিক বাড়াটা আসলেই খুব দরকার ছিল।

জয়তু, ফেসবুক। অনেকদিন বেচে থাক বাবা!  clap

ফেসবুকের হাত ধরে কেউ ইন্টারনেটে প্রবেশ করে উপকৃত হলে ভাল। কিন্তু ইন্টারনেটে বাজে পথও আছে। সেই দিকে চলে গেলে আমার মনে হয় না তার জন্য ফেসবুক=ইন্টারনেট আর্শীবাদ সরুপ!

নাবালক লিখেছেন:

আসলেই . ফেসবুক থাকার কারনে অনেক উপকার হয়েছে .. যখন কাজে বিজি থাকি তখন মোবাইল অফ করে দেই কিন্তু কম্পিউটারে কাজ করি বলে ফাসবুক টা অন রাখি .. big_smile তখন ফাবুকেই মিসকল পাই .. big_smile আবার দেশে ও সবার সাথে ফ্রি তে যোগাযোগ রয়েছে .. আজকে কে কয়টা মুরগি চুরি করে ভুনা খিচুরি খেল কে কয়টা ডাব চুরি করলো big_smile কে ছেকা খেল big_smile সব বন্ধু বান্ধবের থেকে এগুলা পাই ... মনে হয় দেশেই আছি .. smile

আমি ইয়াহু অন রাখি। ইয়াহু অন রেখে অন্য কাজ করলেও কেউ প্রয়জোনে কিছু লিখে দিলে অথবা বাজ মারলে কম্পিউটারের সামনে এসে উত্তর দেই। আর কখন কি করছি সেই স্টাটাস তো আছেই। এই জন্য ইয়াহু বেশি ভাল লাগে। আর ফেসবুকে বন্ধু বান্ধবের খবর, কারো ছবিতে কমেন্ট, সেই কমেন্ট নিয়ে বন্ধুরা মিলে ছবির মালিককে পচানো। এই গুলাতেই মজা পাই। কিন্তু এর বাইরে আর কি করা যায় খুজে পাই না।

'সমাজে সুস্থ বিনোদনের ব্যাবস্থা না থাকলে অসুস্থ বিনোদন হবেই।' :-সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী

১১

Re: আমদের দেশে ফেসবুক জোয়ার কোন দিকে?

চিন্তাভাবনা পইড়া ভালোই লাগলো  thumbs_up

রাবনে বানাদি ভুড়ি :-(

১২

Re: আমদের দেশে ফেসবুক জোয়ার কোন দিকে?

অআমার ফেসবুকে প্রধান কাজই বন্ধু-বান্ধবদের সাথে যোগাযোগ রাখা।

/*The Divinity-The Madness-The Silence*/

আশিক৭২'এর ওয়েবসাইট

লেখাটি GPL v3 এর অধীনে প্রকাশিত