টপিকঃ জাপানে পরমানু চুল্লী বিস্ফোরণ ও আমাদের সতরকতা

[center]http://blog.chasejarvis.com/blog/wp-content/uploads/2011/03/20110311_japan-slide-9XTB-jumbo-576x379.jpg[/center]
শুক্রবার ৮ দশমিক ৯ মাত্রার ভূমিকম্প আঘাত হানে জাপানের পূর্ব উপকূলে। ভূমিকম্পে নিহতের সংখ্যা ২০ হাজার ছাড়িয়ে যাবে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। ওদিকে ফুকুশিমার পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ৩ নম্বর চুল্লিতে গতকাল বিস্ফোরণ হয়েছে। টোকিও ইলেকট্রিক পাওয়ার কোমপানি বলেছে, এতে আহত হয়েছে ১১ জন। এ ঘটনায় ৭ জন নিখোঁজ রয়েছে।

জাপানে ঘটে যাওয়া পরমানু চুল্লী বিস্ফোরণের জের ধরে আশেপাশের অঞ্চলে এমনকি ভারতীয় উপমহাদেশেও এর প্রতিক্রিয়া ছড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সাধারণত তেজষ্ক্রিয়তার ফলে মেঘের পানিকনার সাথে রাসায়নিক বিক্রিয়ার মাধ্যমে সৃষ্টি হয় এসিড এবং সাধারণ মেঘের চেয়ে এই এসিড মেঘ অত্যন্ত দ্রুত আশপোশের অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়ে। চেরনোবিল বিস্ফোরণের সময় ইউরোপের আশপাশের দেশগুলোতে এর ভয়াবহতা দেখা গিয়েছিল। পুর্ব ইউরোপে বেশকিছু পার্বত্য অঞ্চল থাকায় এর প্রকোপ আমাদের ওপর পড়েনি। কিন্তু এখনও সেই ক্ষত বয়ে বেড়াচ্ছে ওই অঞ্চলের অনেক কিছু মানুষ।

এবার জাপানের ঘটনায় আমরাও সেই ঝুঁকির মধ্যে রয়েছি। মাঝখানে উল্লেখযোগ্য উঁচু পর্বতমালা না থাকা এবং সমুদ্র উপকূলের নৈকট্যের কারণে এ ঝুঁকি তৈরি হয়েছে। এ অবস্থায় অল্প সময়ের মধ্যেই এসিড বৃষ্টি হতে পারে চীন জাপান, তাইওয়ান কম্বোডিয়া থাইল্যান্ড ছাড়িয়ে বাংলাদেশেও। ইন্দোনেশিয়া, মালয়েশিয়া এমনকি অস্ট্রেলিয়াও এই ঝুঁকির বাইরে নয়।আজ বিকাল ৪ টায় ফিলিপাইন এ জাপানের বাইরে প্রথম আঘাত হানবে।

এই ঝুঁকির সম্ভাব্য ক্ষয়ক্ষতি এড়াতে আগামী আজসহ দু'দিন বৃষ্টি হলে ঘরের দরজা-জানালা বন্ধ করে ঘরে বসে থাকতে হবে। যারা বৃষ্টির পানি ধরে রেখে খাওয়াসহ বিভিন্ন কাজে ব্যবহার করেন আপাতত তারা পানি ধরবেন না। এই বৃষ্টির মধ্যে এসিডের বাইরেও তেজষ্ক্রিয় অন্যান্য উপাদান মেশানো থাকতে পারে। এই বৃষ্টির বিভিন্ন ক্ষতিকর দিকের পাশপাশি প্রধান টার্গেট হল থাইরয়েড। থাইরয়েডে আক্রমণ করে ক্ষত সৃষ্টির পাশপাশি ক্যান্সারও আমদানি করতে পারে এই তেজষ্ক্রিয় বৃষ্টি। তাই বৃষ্টির সময় এবং এর পরের কিছু সময় গলায় মাফলার বা কাপড় জড়িয়ে রাখা উচিত। সবচেয়ে ভাল এর পাশাপাশি বেটাডিন (Povidone iodine-যা বাজারে Povisef-10% নামে পাওয়া যায়) গলায় লাগিয়ে রাখতে হবে।

শাকসবজি বা অন্যান্য ফল-ফসলের ক্ষয়ক্ষতি এড়ানো হয়তো সম্ভব না তবে যতটুকু মিনিমাইজ করা যায় ততটুকুই লাভ। সবজি বা ফল বাগান তেরপল দিয়ে ঢেকে রাখার পরামর্শ দিয়ে লাভ নেই। তবে পরিপক্ক বা তোলার যোগ্য হয়েছে এমন শাকসবজি বা ফলমূল আহরণ করা যেতে পারে।

তবে এ নিয়ে খুব বেশি আতংকিত হবার কারণ নেই। এটি শুধুই ঝুঁকিমাত্র, না হবার সম্ভাবনাও আছে। তাই একটু সচেতন থেকে মোকাবেলা করলেই খুব বেশি ক্ষয়ক্ষতি হবে না।

আর এই সচেতন তা হিসেবে বাংলাদেশে আমাদের কি করা উচিত তা সরকারি পরযায়ে উপযুক্ত পদক্ষেপ নেয়া উচিত।

Internet

N.B.- কোন টপিকে পস্ত করব বুঝলাম না, তাই শেসে এখানে।

মেডিকেল বই এর সমস্ত সংগ্রহ - এখানে দেখুন
Medical Guideline Books

সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন জেলাল (১৫-০৩-২০১১ ১৬:৩৫)

Re: জাপানে পরমানু চুল্লী বিস্ফোরণ ও আমাদের সতরকতা

ধন্যবাদ। এসিড বৃষ্টির ব্যাপারটি সকালে বিবিসির নিউজফ্ল্যাশে দেখি। পরবর্তীতে আবার এটাকে গুজব বলা হচ্ছে।

Re: জাপানে পরমানু চুল্লী বিস্ফোরণ ও আমাদের সতরকতা

আপনি যদি এটা সামু থেকে পেয়ে থাকেন তাহলে তেমন কিছু বলার নাই। যেহেতু সামুর লেখক কোন সূত্র উল্লেখ করেননি, তাই এই আর্টিকেলটা মৌলিক বলে ধরে নিচ্ছি। সেক্ষেত্রে অতিরিক্ত লাইন গুলোর একটু রেফারেন্স চাচ্ছি। যেমন "আজ বিকাল ৪ টায় ফিলিপাইন এ জাপানের বাইরে প্রথম আঘাত হানবে" ইত্যাদি... ।

সামুর রেফারেন্স হচ্ছে...
http://www.somewhereinblog.net/blog/pac … g/29344694

ওখানে কিছু কমেন্ট পড়ে দেখতে পারেন। বিশেষ করে শেষের দিকের গুলো। তার মাঝে একটা হুবহু তুলে দিচ্ছি।

মৌনতা০১ বলেছেন: ৪র্থ পরমাণু চুল্লীতে আগুন ধরে যাওয়ার পর ফুকুশিমার আশে পাশের এলাকায় তেজস্ক্রিয়তার মাত্রা উল্লেখযোগ্য ভাবে বেড়ে গেছে এটা সত্য। ওই এলাকা থেকে লোকজন কে সরিয়ে নেয়া হচ্ছে/হয়েছে। টোকিওতে কম মাত্রার তেজস্ক্রিয়তা হতে পারে বলা হয়েছে। যা নিয়ে জাপানের জনগণকেও অস্থির না হয়ে শান্ত থাকতে বলা হয়েছে।

রয়টার্স নিউজ 

আর তা বাংলাদেশের জন্য এখন পর্যন্ত হুমকি নয়। ফিলিপাইনে তেজস্ক্রিয়তার মাত্রা পরীক্ষা করে বিবৃতি দেয়া হয়েছে। মানুষকে ঘর থেকে রেইনকোট পরে বের হওয়া, এসিড বৃষ্টি হতে পারে ইত্যাদি গুজবে কান না দিতে পরামর্শ দিয়েছে ওখানকার বিশেষজ্ঞরা।

ফিলিপাইনের খবর

আর যদি অন্য কোথাও থেকে পেয়ে থাকেন, তবে সূত্রটা/গুলো উল্লেখ করলে আমার জন্যে ভালো হত।


আর এ বিষয়ে একটা তথ্য শেয়ার করি। মজার ব্যাপার হল Acid Rain নিয়ে উইকিপিডিয়াতে খুঁজতে গিয়ে পেলাম যে  বলা আছে অ্যাসিড বৃষ্টি (ইংরেজি ভাষায়:Acid rain) এক ধরনের বায়ুদূষণ ... !!! isee
http://bn.wikipedia.org/wiki/অ্যাসিড_বৃষ্টি
সংশ্লিষ্টরা একটু দেখবেন নাকি ব্যাপারটা?

অটঃ
আমার মোবাইল আর ফেসবুকে পেলাম এটা (বিভিন্ন মানুষের কাছ থেকে)...
"A nuclear power plant in Fukumi, Japan exploded at 4.30 am yesterday. If it rains tomorrow or later. It’s acid rains, be sure that you have rain protectors, If you are outside don’t let it touch you. may burn your skin, lose your hair or have cancer. Stay safe and remind everyone you know.
Please circulate the message to all of your frnds n family members."

আমি সাবধান বাণীকে অবশ্যই স্বাগত জানাচ্ছি। কিন্তু সবচেয়ে আশ্চর্যের ব্যাপার হল, কেউ একজনও একটা নির্ভরযোগ্য সূত্রও দিচ্ছে না। thinking

লেখাটি CC by 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: জাপানে পরমানু চুল্লী বিস্ফোরণ ও আমাদের সতরকতা

সাবধান করার জন্য ধন্যবাদ.

নাই

Re: জাপানে পরমানু চুল্লী বিস্ফোরণ ও আমাদের সতরকতা

এই রেডিয়েশন সম্পর্কিত খবর নাকি betadine এর বিক্রি বাড়িয়ে দিয়েছে !!
সুত্রঃ http://www.visayandailystar.com/2011/Ma … negor3.htm

অটঃ আমার এসএমএস আর ফেসবুক এর উপরে উল্লেখিত মেসেজ সম্পর্কিত একটা ভালো খবর পেলাম। বিবিসি বলেছে রেডিয়েশন সম্পর্কিত এসএমএস এবং মেইল গুলো ভুয়া। এশিয়ার কিছু দেশে সোমবার থেকে এগুলো ব্যাপক আকারে ছড়িয়ে পড়া শুরু করে। এরমাঝে ফিলিপাইন অন্যতম।
বিস্তারিত এখানে

এছাড়াও দেখতে পারেন...
http://www.philstar.com/Article.aspx?ar … goryId=107
http://www.techpinas.com/2011/03/japan- … shima.html

লেখাটি CC by 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: জাপানে পরমানু চুল্লী বিস্ফোরণ ও আমাদের সতরকতা

dr.shamim লিখেছেন:

সাধারণত তেজষ্ক্রিয়তার ফলে মেঘের পানিকনার সাথে রাসায়নিক বিক্রিয়ার মাধ্যমে সৃষ্টি হয় এসিড এবং সাধারণ মেঘের চেয়ে এই এসিড মেঘ অত্যন্ত দ্রুত আশপোশের অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়ে।

dr.shamim লিখেছেন:

এই ঝুঁকির সম্ভাব্য ক্ষয়ক্ষতি এড়াতে আগামী আজসহ দু'দিন বৃষ্টি হলে ঘরের দরজা-জানালা বন্ধ করে ঘরে বসে থাকতে হবে। যারা বৃষ্টির পানি ধরে রেখে খাওয়াসহ বিভিন্ন কাজে ব্যবহার করেন আপাতত তারা পানি ধরবেন না।

পারমানবিক তেজষ্ক্রিয়তার জন্য এসিড বৃষ্টি হয় না, হয় বাতাসে অত্যাধিক এসিডিক ম্যাটেরিয়াল(যেমন সালফার-ডাই-অক্সাইড, নাইট্রাস অক্সাইড ইত্যাদি) থাকার কারনে। তাই এর নাম এসিড বৃষ্টি (acid rain)। এর থেকে কোনভাবেই বাঁচা সম্ভব নয়। এসিডের তিব্রতা বেশি হলে ঘরের টিন, দরজা-জানালা সবই আক্রান্ত হবে। ক্ষেতের জমিতে অত্যাধিক এসিড জমে তা দীর্ঘমেয়াদি প্রভাব ফেলে। সূত্রঃ নাইন-টেনের কেমিস্ট্রি বই।

তেজষ্ক্রিয়তা যদি বাংলাদেশ হিট করেই, বাতাসে ভেসে এসেই করতে পারে। সেটা এক্সপার্টেরা ভাল বলতে পারবে।

সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন dr.shamim (১৬-০৩-২০১১ ১০:১০)

Re: জাপানে পরমানু চুল্লী বিস্ফোরণ ও আমাদের সতরকতা

@রেজওয়ানুর, আমি ত নিচে লিখেছি সুত্র ইন্টারনেট, অনেক যাইগা থেকে নিয়ে লিখেছি। তার মধধে সামুর ওটাও আছে। আর কিছু আমার মেডিকেল এর জ্ঞান থেকে লিখেছি শুধু মাত্র সবাই কে সচেতন করার জন্য। আর এসিড ব্রিস্টির বেপার টা হচ্ছে ব্রিস্টির সঙ্গে রেডিয়েশন ছড়িয়ে পড়া। উইকিপিডিয়া সব সময় সঠিক নয়। এইটা আল্লাহ র গজব ও হতে পারে।

সবাই ভাল থাকুক এইটাই চাই।

জাপানে আমার ১০জনের মত আত্তিও আছে, কিন্তু তারা আসতে পারছে না। তাদের জন্য দোয়া করবেন সবাই ।

মেডিকেল বই এর সমস্ত সংগ্রহ - এখানে দেখুন
Medical Guideline Books

Re: জাপানে পরমানু চুল্লী বিস্ফোরণ ও আমাদের সতরকতা

dr.shamim লিখেছেন:

@রেজওয়ানুর, আমি ত নিচে লিখেছি সুত্র ইন্টারনেট, অনেক যাইগা থেকে নিয়ে লিখেছি। তার মধধে সামুর ওটাও আছে। আর কিছু আমার মেডিকেল এর জ্ঞান থেকে লিখেছি শুধু মাত্র সবাই কে সচেতন করার জন্য। আর এসিড ব্রিস্টির বেপার টা হচ্ছে ব্রিস্টির সঙ্গে রেডিয়েশন ছড়িয়ে পড়া। উইকিপিডিয়া সব সময় সঠিক নয়। এইটা আল্লাহ র গজব ও হতে পারে।

সবাই ভাল থাকুক এইটাই চাই।


জাপানে আমার ১০জনের মত আত্তিও আছে, কিন্তু তারা আসতে পারছে না। তাদের জন্য দয়া করবেন সবাই ।

সাবধানের মাইর নাই

ঘরের কোনে মনের বনে, তোমার সাথে জোছনা স্নান...
তোমার দুহাত থাকলে হাতে; স্বপ্নে জাগে মধুর প্রাণ।
ছড়া সব করে রব

নাদিয়া জামান'এর ওয়েবসাইট

লেখাটি CC by 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: জাপানে পরমানু চুল্লী বিস্ফোরণ ও আমাদের সতরকতা

বাংলাদেশে আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই
জাপানের ভূমিকম্প ও সুনামিতে ক্ষতিগ্রস্ত পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র থেকে ছড়িয়ে পড়া তেজস্ক্রিয়তায় বাংলাদেশের মানুষের ক্ষতির কোনো আশঙ্কা নেই বলে জানিয়েছেন স্থানীয় বিশেষজ্ঞরা।
জাপানের পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের চুল্লির বিস্ফোরণে ছড়িয়ে পড়া তেজস্ক্রিয়তার কারণে বাংলাদেশে এসিড-বৃষ্টি হতে পারে, এ রকম তথ্যসংবলিত একটি বার্তা মুঠোফোনের মাধ্যমে রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় ছড়িয়ে পড়েছে।
বাংলাদেশ আণবিক শক্তি কমিশনের নিউক্লিয়ার পাওয়ার অ্যান্ড এনার্জি ডিভিশনের পরিচালক শওকত আকবর গতকাল প্রথম আলোকে বলেন, জাপানের ওই দুর্ঘটনা থেকে বাংলাদেশ পর্যন্ত তেজস্ক্রিয়তা ছড়িয়ে পড়ার কোনো আশঙ্কা নেই। হয়তো অতি উৎসাহী কেউ এ রকম বার্তা ছড়িয়েছেন।
শওকত আকবর বিষয়টি ব্যাখ্যা করে বলেন, জাপানের ফুকুশিমা পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রে প্রথমে মূলত রাসায়নিক বিস্ফোরণ ঘটেছে। চুল্লিতে হাইড্রোজেনের মাত্রা বেড়ে যাওয়ায় তা বিস্ফোরিত হয়েছে। কেন্দ্রটির নকশা অনুযায়ী, ভূমিকম্পের ঝাঁকুনি শুরু হওয়ার পরপর চুল্লিটি স্বয়ংক্রিয়ভাবে বন্ধ হয়ে যায়। কিন্তু শীতলীকরণ ব্যবস্থা কাজ না করায় এটি উত্তপ্ত হতে থাকে। এখন যদি এই চুল্লির পারমাণবিক জ্বালানি গলতে থাকে, তবে তেজস্ক্রিয়তা ছড়িয়ে পড়তে পারে। সেটাও ইউক্রেনের চেরনোবিল দুর্ঘটনার মতো মারাত্মক হবে না। আর বাংলাদেশে এর প্রভাব পড়ার কোনো কারণ নেই।
এদিকে বিভিন্ন বার্তা সংস্থার খবরে বলা হয়েছে, আগামী কয়েক দিন জাপানে পূর্বমুখী বাতাস প্রবাহিত হবে। বাতাসের মাধ্যমে তেজস্ক্রিয়তা ছড়িয়ে পড়লে তা যাবে প্রশান্ত মহাসাগরের দিকে। বাংলাদেশ জাপান থেকে পশ্চিম দিকে। তাই এ সময় এদিকে তেজস্ক্রিয়তা ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা নেই।
রায়পুরে মাইকিং!: গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা দেখা দিলে মানুষের মধ্যে এসিড-বৃষ্টির আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। সেখানকার ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বৃষ্টির সময় না ভিজে ঘরে থাকার অনুরোধ জানিয়ে এলাকায় মাইকিংও করেন।
http://www.prothom-alo.com/detail/date/ … ews/138864

লেখাটি LGPL এর অধীনে প্রকাশিত

১০

Re: জাপানে পরমানু চুল্লী বিস্ফোরণ ও আমাদের সতরকতা

এসিড বৃষ্টি হওয়ার সম্ভবনা আছে একমাত্র, জাপানের ক্ষতিগ্রস্থ পরমানু কেন্দ্রের ৪০ থেকে ৬০ মাইলের মধ্যে। হাজার মাইল দুরের বাংলাদেশে এই দুর্যোগের সম্ভাবনা খুব ক্ষিণ, যদি না বাতাসের বেগ খুব প্রচন্ড হয়।

তামিম৬৯'এর ওয়েবসাইট

লেখাটি CC by-nc 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত