টপিকঃ ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

আবুল ভাইয়ের পোস্ট দেখে ডেস্টিনি নিয়ে আলোচনা করার শখ হইল। আমার একখান ডেস্টিনি অভিজ্ঞতা আছে। ভাবলাম শেয়ার করি।

আমার এক দুর সম্পর্কের মামার সাথে তার তথাকথিত অফিস ডেস্টিনিতে গেছিলাম।
ঈমানে কইতাছি, টানা ৫ ঘন্টা সিটিং দেবার পর এহন আমারও গলায় টাই বানতে মন চাইতাছে।

শুরুটা বে-রশিক বিদ্যুতরে নিয়া। মামার লগে বাইর হওনের কতা ২:৩০ মিনিটে। বিদ্যুতের আসার নাম নাই। আমি গোসল করমু কেমনে? ট্যাংকিতে পানি নাই। আমি শুয়ে আছি। আর মামায় বিদ্যুতরে গালী দিতাছে। ঠিক সোয়া দুইটায় আমারে শোয়া থেকে তুলতে বিদ্যুতের আগমন, আমার তৈরি হওয়া এবং মামার সাথে পল্টন গমন।

শুরু হইল সিটিং পিএসডি জনাব x (নাম না হয় নাই জানলেন) সাহেবের সাথে। তিনি কামেল মানুষ। আগে হোমিও ডাক্তার ছিলেন। বিড়াট নাম যশ ছিল। কামেল মানুষ এহন চেম্বার ফালয়া ডেস্টিনির পিএসডি। কোন কাম না কইরা ঘরে বইসা কামাই করে মাসে ৫০০০০ কাচা ট্যাহা। আমি বেকার আর দইন্যার আইলস্যা মানুষ। লোভ সামলাইতে পারলাম না। কইলাম, আমারে কি করতে হপে কন? আমিও ট্যাহা কামাইতে চাই। তিনি কহিলেন, ভাগিনা, তুমি আমগরে একটা ৫০০ পয়েন্টের প্যাকেজ কেন। তোমারে সদস্য করে নেয়া হবে। আমি কই, আপনেরা নাকি মানুষ লই ব্যবসা করেন? পিরামিড স্কিম না নাম। পন্য কিন্যা কি হইবে? তিনি চেইতা কইলেন, কেডায় কয়? আমরা করি MLM। এর লগে মাইনষের কুনু সম্পর্ক নাই। আমি কই, কন কি? আমারে মানুষরে ধোকা দিয়া বোকা বানাইতে হইব না? ডাইন হাত বাম হাত তত্ব কি ভুল? হেয় কয়, অবশ্যই ভুল। তোমার সার্কেল পুরন হইব পন্য বিক্রয়ের মাধ্যমে। তোমার লেফট হ্যান্ড সার্কেল আর রাইট হ্যান্ড ............... (কম বেশি মনে হয় সবাই জানেন। তাই বিস্তারিত বললাম না)। আমি এইবার হিসাবে নাইমা পডলাম। আমি ৪০ সাইকেল পন্য কিইন্যা/বেইচ্যা আমার পিএসডি হইতে হইলে ডেস্টিনির লাভ দেয়া লাগবেক, ৪০(সাইকেল)*২১০০০(প্রতি সাইকেল পুরনের পয়েন্ট)*৫.৫(প্রতি পয়েন্টে ডেস্টিনির লাভ) ৪৬ লাখ ২০ হাজার ট্যাহা। খেয়াল কইরেন, এই ট্যাহা কইল খালি ডেস্টিনির লাভের পরিমান। পন্য ক্রয়ের পরিমান না। মানে ধরেন আমি ৫০০০ টাকার পন্য কিনলাম। সেই পণ্যে ডেস্টিনির লাভ যদি ২৭৫০ ট্যাহা হয় (তাদের হিসাবে। আসল লাভ কত কে জানে?) তয় আমার পয়েন্ট হইবেক ৫০০। আমার ৫০০০ টাকায় কোন পয়েন্ট নাই। মানে ১ পয়েন্ট পাওয়ার জন্য আমাকে কোম্পানীকে অবশ্যই ৫.৫ ট্যাহা লাভ করায়া দিতে হবি। আমি কই, অত ট্যাহা কই পামু? কয় বিকল্প পথও আছে। আমি খুশিতে নাইচ্যা উডি। কই জলদী কন। উনি কন, তুমি যদি দুইট্যা লোকের কাছে পন্য বিক্রয় করে আমাদের সদস্য বানায়া দেও, তবে তারা যে পন্য কিনব বা বেচব, তার রয়ালিটি পাইবা। তাদের পয়েন্ট তোমার পয়েন্টের সাথে যোগ হইব। তুমি জলদী জলদী কোন কাম না কইরা পিএসডি হবা। মনে মনে কইলাম, যাউগ্যা- অবশেষে শিং দেখাইন্যা শুরু করছে। আর বাইরে বাইরে কইলাম আফনে না কইলেন মানুষ নিয়া কোন কারবার নাই। তিনি কন, ঠিকইতো কইছি। আমগরে ব্যবসা পন্য। তয় মানুষ না থাকলে কিনব কেডা? এই জন্যই মানুষ। আমি তার পল্টি প্রতিভায় মুগ্ধ হয়া আর কথা বাড়াইলাম না। কইলাম, আফনের পন্যের বিবরণ দেন। একটা কিইন্যা নিজেরে ধন্য করি। উনি প্রথমেই বাহির করিলেন ফুট মেসেজার। কইলাম, ইহা দিয়া কি হয়? উনি কহিলেন, ঘরে বসিয়াও শরীর চর্চা করা যায়। আমি বিরক্ত হইয়া কহিলাম, বাসার সম্মুখে বিশাল মাঠ। শরীর চর্চার প্রয়োজন হইলে মাঠে দৌড় দিমু। তিনি কহিলেন, ভাগিনা, বৃষ্টির দিনে কি করবা? আমি কইলাম, জিমে ভর্তী হমু। উনি কয়, ঠিকাছে। আস গাছ লাগাই। আমি খুশি হইলাম। গাছ লাগান তো ভালা কাম। আমি রাজি। তিনি খুশি হইয়া কহিলেন, ৩০টা গাছ ১০,০০০ ট্যাহা। ১২ বছর পর রিটার্ণ পাইবা ২৭০০০ (৩০০০০ এর কতিপয় চার্য কর্তন করা হবে)। অংকে কাচা আমি আবারও হিসাবে বসিলাম। ৩০টা চারা গাছ। দাম ১০০০০। প্রতিটার দাম পড়ব ৩৩৪ ট্যাহা(প্রায়)। আমি আৎকায়া উডি কইলাম, আমি মানি না। আমি প্রতিডা চাড়া ৫ ট্যহা করি কিনি ৫০ টা চারা লাগামু। বাকি ৯৭৫০ ট্যাহার মাসে ১০০ ট্যাহা করি গ্রামের কোন লোকরে দিয়া ৮ বছর যত্ন নিতে কমু। যদি ৫ টা গাছও বাচে, দেহমু রিটার্ণ আপনার বেশি না আমার বেশি। উনি কয়, গাছ লাগাইবা, জায়গা পাবা কই? আমি কইলাম আপনারা যেমন পাইছেন। উনি কয়, বুঝলাম না। আমি কইলাম, আপনারা যেমন সরকারী জায়গায় লাগাইছেন, আমি লাগামু সরকারী রাস্তার ধারে (আমার চাচাত ভাই এই কাজ করেছে। আমাদের থানার টি.এন.ও নিজে এসে উৎসাহ দিয়ে গেছে।) উনি কয়, ঠিক আছে। এটাও বাদ। তুমি কও, তুমি কি পন্য চাও? আমি কইলাম, বাজারে চাউলের দাম বেশি। আপনারা যদি ডাইরেক্ট মার্কেটিং এর মাধ্যমে আমারে স্বল্প মূল্যে চাউল দিতেন!!!!!! উনি কইলেন, আমরা কুমিল্লা সহ বেশ কিছু অঞ্চলে এই কাজ শুরু করছি। আমি কইলাম, শুইন্যা শান্তি পাইলাম। আমিতো কুমিল্লায় থাকি না। থাহি, ঢাকায়। সামনে রমজান। সব জিনিষের দাম বাড়ব। যদি রমজানের..........। কথা শেষ করবার পারি নাই। আরেক কামেল (পিএসডি ২) এতক্ষণ পাশে দাড়ায়া শুনতেছিল, তিনি আইস্যা আসন গ্রহন করিয়া আমাকে ধন্য করিলেন। অত:পর কহিলেন, আপনি কি সদস্য হইতে আসিয়াছেন, নাকি জানতে? আমি সরাসরি কহিলাম, জানতে। তিনি উত্তেজিত হইয়া কহিলেন, তাহলে আপনাকে জানায়া দেই। আমরা কি পন্য নিয়া ব্যবসা করিব, সেটা আমাদের ব্যাপার। আপনার কোন পরামর্শ লাগবে না। আমরা ভাবিয়া দেখিব কোন পণ্যে লাভ বেশি। তা আপনি কি করেন? আমি মাথা নিচু কইরা কহিলাম, বেকার। তিনি আমার পড়াশোনার দৌড় জানতে চাইলেন। মিনমিন কইরা কইলাম, প্রইভেট ভার্সিটি থেকে এমবিএ। তিনি তারপর আমারে জিগাইলেন, আমি স্বপ্ন দেহি কি না। আমি কই না, দেহি না। তিনি কইলেন, কেন? আমি কইলাম দিন রাত মিলায়া ঘুমাই ৩/৪ ঘন্টা। এমন মরার মত ঘুমাই, স্বপ্ন দেহার সময়ই পাই না। তিনি মুচকি হেসে কহিলেন, আপনি তো স্বপ্নের সজ্ঞাই জানেন না। আমি কইলাম, “হ, আসলেই জানি না। শুধু জানি স্বপ্ন সেটা না, যেটা আপনি ঘুমের মাঝে দেখেন। স্বপ্ন সেটাই, যেটা আপনাকে ঘুমাতে দেয় না (ভারতের সাবেক প্রেসিডেন্ট এ পি জে আবুল কালাম)।“ চারদিকে ব্যাপক হাততালিয়ার শব্দ পাইলাম। ভাবলাম সবাইরে তাক লাগায়া দিছি। আসল ঘটানা কিন্তু ভিন্ন। একটা শিকার টোপ গিলেছে। সেই খুশিতে শিকার এবং শিকারী কোলাকুলি করতেছে। বাকিরা হাত তালি দিতাছে। এবার কামেল পিএসডি ২ কয় আমার স্বপ্ন না থাকলেও হেগরে নাকি স্বপ্ন আছে। সেইটা হইল ২০১২ সালে বাংলাদেশে কেউ গরীব থাকব না। আমি দেখলাম, তিনি যে চেয়ারে বইস্যা আছে সেই চেয়ারের গদি ছেড়া। খালি ছেড়া না, বেশ ছেড়া। তাই সুযোগ নিয়া কইলাম, কেউ গরীব না থালে ঐ চেয়ারডা সেলাই করব কেডা? চেয়ারের গদী সেলাই করা লোকটাতো তখন চেয়ার সেলাই বাদ দিয়া ডেস্টিনির মাল বেচব। তিনি কহিলেন, কেন? উন্নত বিশ্বের লোকেরা কি করে? নিজের চেয়ার নিজে সেলাই করমু। আমি কই, আমরা খামু কি? কৃষক ধান চাষ না কইরা ডেস্টিনি করব। আমগরে কি হইব? তিনি অত্যাদিক ক্ষেপিয়া কহিলেন, দুনিয়ায় আপনিই একমাত্র বুদ্ধিমান লোক নহে। প্রাইভেট ভার্সিটি থেকে পাশ কইরা মহা জ্ঞানী হয়া যান নাই।
আহা! তারা আমারে এমুন সম্মান দিল! আমারে বুদ্ধিমান কইল? আমি খুশি হইয়া বাকবাকুম কইরা কইলাম, "জ্ঞানী গুনি কারা ডেস্টিনি করে। অধমরে একটু জানাইবেন কি?" তিনি কহিলেন, ঢাকা ভার্সিটির অনেক ছাত্র/ছাত্রী চাকুরি না কইরা ডেস্টিনি করে। তারা কোটি কোটি টাকা কামায়। টাকার কথা শুনে আবার আমার দিলডা ধ্বক কইরা উঠল। কইলাম, ঢাকা ভার্সিটির মোট স্টুডেন্টের কত পার্সেন্ট ডেস্টিনি করে? .০০০১% হবে তো? তিনি এইবার অত্যাধিক ক্ষেপিয়া উঠিলেন? বলিলেন, “এই জন্যইতো মিয়া আপনার চাকরি হয় না। বেশি বোঝেন তো? এই বেশি বুঝ নিয়াই থাইকেন।“ তাহার উত্তেজিত চেচামেচিতে (সাথে আমারটাও যোগ করে নিয়েন। ধৈর্য্যর বাধ ভেঙ্গে গেছিল) আশে পাশের বেশ কয়েকটা কামেল সাথে চামচা হাজির। সাবাই আমারে বুঝাইতে চায়। কিন্তু আমি বুঝি না। আমার বুদ্ধি কম। কি করমু কন? এক মহা ঢঙ্গী তরুনী বাঘিনীর ন্যায় আমারে জিজ্ঞেসিল, “আপনি কি কইতে চান, আমরা ৩৪ লাখ সদস্যর মাথায় কোন বুদ্ধি নাই?” আমি ভয় পাইলেও সাহস কইরা উত্তর দিলাম, “আমি কইতে চাই, আপনারা এক মাস্টার মাইন্ডের ভিক্টিম, এহন অন্যদের ভিক্টিম বানানোর তালে আছেন।“ সাথে সাথে একজনের উত্তর, “আপনার সাথে আমার পার্থক্য কোথায় শুনবেন? আপনি এত বুঝেও বেকার। আমি ডেস্টিনি করে দুইটা টাকা কামাই করি।“ বাবারা, আমারে চেন নাই। সাথে সাথে কইলাম, “চোরওতো চুরি কইরা দুইটা টাকা কামায়। কাইল থেকে কি আমি চুরি করমু?” সাথে সাখে এক কামেল পিএসডি যে মার্কেটিং এ এমবিএ করা এবং ইতিপুর্বে আমি ফাইন্যান্সের ছাত্র বলিয়া আমি মার্কেটিং বুঝিনা এই মর্মে আমাকে সাপ্লাই চেইন বোঝাইতে আসছিল, কহিয়া উঠিল, “ঐ মিঞা, আপনে এখানে আসছেন কেন? বাইর হন এখান থেইক্যা।“

দাওয়াত দিয়া ডাইক্যা আইন্যা এমুন অপমান। ভাইরে, কেউ আমারে একটা টাই দেন। টাইডা গলায় বাইন্ধা যদি ফাসি নেওনের কামডা চলে।


নোট: টানা ৫ ঘন্টার সিটিং। সহজে কি শেষ হয়? ২/৩ বার মাফ চাই কইয়া পালাইতে চাইছি। পালাইতে দেয় না।

হুজুর কইছে, "কোরআন শরীফে আছে- তোমরা নামাজ থেকে বিরত থাক।" আমি তাই নামাজ পড়ি না। হুজুর যদি ইচ্ছা করে "অপবিত্র অবস্থায়" শব্দ দুটো বাদ দেয়, তার জন্য তো আমি দায়ী না।

সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন দ্যা ডেডলক (০৭-০২-২০১১ ১১:০৪)

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

জটিল মজা পেলাম  thumbs_up thumbs_up

আমার অভিজ্ঞতা নিয়ে আগেই লিখে ছিলাম ডেসটিনি ২০০০ লিঃ ও MLM নাকি MLC

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

big_smile big_smile
big_smile big_smile

lol2 lol2 lol2 lol2 lol2 lol2
lol2 lol2 lol2 lol2 lol2 lol2

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

সমূহমাত্রায় বিনোদিত হইলাম।

লেখাটি GPL v3 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

সবাই দেখি এইটাকে হাসির বাক্স বানায়া ফেলল। আমিতো দৈনন্দিন বিভাগে পোস্ট করছি।  big_smile

হুজুর কইছে, "কোরআন শরীফে আছে- তোমরা নামাজ থেকে বিরত থাক।" আমি তাই নামাজ পড়ি না। হুজুর যদি ইচ্ছা করে "অপবিত্র অবস্থায়" শব্দ দুটো বাদ দেয়, তার জন্য তো আমি দায়ী না।

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

বাংলারমাটি লিখেছেন:

সবাই দেখি এইটাকে হাসির বাক্স বানায়া ফেলল। আমিতো দৈনন্দিন বিভাগে পোস্ট করছি।  big_smile

ভাই মনটা প্রচন্ড রকমের খারাপ অথচ এই মন খারাপের ভিতরেও আপনার পোষ্টটা পড়ে হাসতে বাধ্য হলাম এমনকি হাসতে হাসতে অবস্থা খারাপ। জটিল লিখছেন। ধন্যবাদ

বাংলারমাটি লিখেছেন:

“আমি কইতে চাই, আপনারা এক মাস্টার মাইন্ডের ভিক্টিম, এহন অন্যদের ভিক্টিম বানানোর তালে আছেন।“ big_smile

এই কথাটা খুব ভাল বলছেন।

Life without MUSIC would be a mistake

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

যাক! জানে বাইচা গেছেন।

না লিখতে-লিখতে, স্বাক্ষর করা ভুলে গেছি।
এখন শুধু পাসওয়ার্ড দিতে পারি।
ওয়েবে সার্চ ইন্জিন অপটিমাইজেশন শেখার বাংলা বই

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

খুব মজা পাইছি৷ yahoo yahoo lol2 lol2

রাব্বি হোসেন'এর ওয়েবসাইট

লেখাটি CC by-nc-sa 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

জটিলস জটিলস.... এতক্ষনে আসল লোক পাইলাম... আসেন ভাই কোলাকুলি করি। ভাই আত্তীয় স্বজনে মধ্যে ডেসটিনি ওয়ালাদের দৌরাত্বে আমি এখন আনশোসাল হয়া গেছি।

এক জীবনই সম্পূর্ন নয়।..

My e-mail address

১০

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

বাংলারমাটি লিখেছেন:

সবাই দেখি এইটাকে হাসির বাক্স বানায়া ফেলল। আমিতো দৈনন্দিন বিভাগে পোস্ট করছি।  big_smile

হেহেহে...এসব ভন্ডামি নিয়া কিছু ভন্ড সাফাই গাইতে গাইতে এমন হাস্যকর অবস্থা করছে যে এধরনের  টপিকরে হাসির বাক্স বানানি ছাড়া গতি নাই  lol

১১

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

অনেক দিন বড় লেখা পড়তে ইচ্ছা করে না। কিন্তু আপনার লেখা এক নিশ্বাঃসে পড়ে ফেললাম। চরম লিখেছেন। রেপু নেন কারও কাছ থেকে।  clap

১২ সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন problogger99 (০৭-০২-২০১১ ১৫:১৩)

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

চরওওম লিখেছেন বস। আবুউউউল ভাইয়ের পোষ্টে ডেসটিনি নিয়ে আমার মূল্যায়ন দিয়েছিলাম এভাবেঃ

ডেসটেনির মূল সমস্যা তারা মানুষের কাছে পন্য বেচে না বেচে একগুচ্ছ স্বপ্ন...চক্রটা এমন যে উপরের কিছু মানুষ অনেক উপরে উঠে যাবে আর রুট লেভেলের মানুষগুলো স্বপ্নের পেছনে ছুটতে ছুটতে একসময় বিরক্ত হয়ে সিষ্টেম ত্যাগ করবে মাঝে যার যা লাভ হওয়ার তাই হবে...

এখন সমস্যা হোল বাংলাদেশে থাকতে হলে যেমন মশার কামড় খেতে হয় তেমনি আত্নীয় স্বজনের মাঝে দুই একজন ডেসটিনি ইফেক্টেড পাবলিকের কথা হজম করতে হয়। আমার অনলাইন ছাড়া আর কোণ বিষয়তে আপনার মতো অতো ধৈর্য নাই বলে ডেসটিনি/শেয়ার বিজনেস এসব কিছুই বুঝি না yahoo yahoo। সমস্যা হোল যে কোন কিছুর বিপরীতে যুক্তি দিতে হলে মূল ব্যাপারটা আগে ধরতে হয়। তাই নিচে কিছু প্রশ্ন করলাম-এগুলোর পালটা জবাব কিভাবে দিব কাইন্ডলি বলে দেন। আশা করি অন্যরাও উপকৃত হবেঃ

১-ওদের নাকি কি গাছের প্রকল্প আছে যেটা এখন ১০ হাজার টাকায় কত যেন রিটার্ন দিবে বলছিল। ঐদিকে পেপারে দেখলাম ওদের জমি নিয়ে নাকি গ্যানজাম আছে। তবে গাছ লাগালে তো ভাল কাজ হবে+টাকা সঞ্চয় না করে কাজে লাগালে তো ভালই। আর সবার পক্ষে তো নিজে ম্যানেজ করে কাউকে দিয়ে গাছ লাগানো+নিজে রক্ষনাবেক্ষন সম্ভব না। এই প্রকল্পের ব্যাপারে অনেককেই দেখলাম আগ্রহী। এ ব্যাপারে কি যুক্তি দেওয়া যায় একটু বলুন তো?

২-ওদের টাওয়ারের কি যেন আরেকটা প্যাকেজ আছে দেখলাম।অনেক জায়গায় নাকি কয়েক তালাও দাঁড়ায় গেছে অলরেডি। এই প্রকল্পের ব্যাপারে কি যুক্তি দিব? আমি কিন্তু বিস্তারিত কিছুই জানি না... hairpull

আপাতত এই দুইটা ব্যাপারেই জানতে চাই। সামনে মনে আরো প্রশ্ন আসলে করে ফেলব।

answering-islam টাইপের সাইট এর লেখাগুলো পড়ে পড়ে মুসলাম থেকে নাস্তিক হবার আগে পালটা যুক্তিগুলো জানতে ভিজিট করুন http://www.islamic-awareness.org/আশা রাখি মুসলমান হিসেবে বিভিন্ন বিষয়ে মনের সন্দেহ দূর হবে ইনশাল্লাহ।

১৩

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

চরম বলেছেন। আমার অনেক ফ্রেন্ড ডেসটিনিতে ঢুকে এখন পড়ালেখার চিন্তা একেবারেই বাদ দিয়েছে।
ডেসটিনি কি ? এই প্রশ্নের উত্তরে আমার একটা সংজ্ঞা আছে, যেটা আমি সবখানেই দিয়ে থাকি-
      ''নিজের পকেট মারিং হইয়া যাইবার পর উক্ত টাকা উসুলাইবার লক্ষ্যে অন্যের পকেট মারিবার প্রচেষ্টাকে ডেসটিনি বলে''
আপনার এই টপিকেও তেমন কথাই পেলাম। যা হোক ধন্যবাদ আপনাকে।
অঃটঃ বুঝলাম না, রেপু দেয়ার সিস্টেম খুইজা পাইতেছি না কেন? whats_the_matter

১৪

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

নতুন সদস্য বলে রেপু দেয়ার ক্ষমতা আপনার নাই। ৫০ পোস্ট করার পর পাবেন সেই ক্ষমতা।

আমি বাঙালী লিখেছেন:

বুঝলাম না, রেপু দেয়ার সিস্টেম খুইজা পাইতেছি না কেন?

১৫

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

সেভারাস লিখেছেন:

নতুন সদস্য বলে রেপু দেয়ার ক্ষমতা আপনার নাই। ৫০ পোস্ট করার পর পাবেন সেই ক্ষমতা।

ধন্যবাদ, জানানোর জন্য।

১৬

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

সেভারাস লিখেছেন:

অনেক দিন বড় লেখা পড়তে ইচ্ছা করে না। কিন্তু আপনার লেখা এক নিশ্বাঃসে পড়ে ফেললাম। চরম লিখেছেন। রেপু নেন কারও কাছ থেকে।  clap

আমিও এক নি:শ্বাসে পড়লাম। জটিল!!  lol

অ আ ই ঈ উ ঊ ঋ এ ঐ ও ঔ
ক খ গ ঘ ঙ চ ছ জ ঝ ঞ ট ঠ ড ঢ ণ ত থ দ ধ ন প ফ ব ভ ম য র ল শ ষ স হ ক্ষ ড় ঢ় য়
ৎ ং ঃ ঁ

আলোকিত'এর ওয়েবসাইট

লেখাটি CC by-nc-nd 3. এর অধীনে প্রকাশিত

১৭

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

আমি বাঙালী লিখেছেন:

চরম বলেছেন। আমার অনেক ফ্রেন্ড ডেসটিনিতে ঢুকে এখন পড়ালেখার চিন্তা একেবারেই বাদ দিয়েছে।
ডেসটিনি কি ? এই প্রশ্নের উত্তরে আমার একটা সংজ্ঞা আছে, যেটা আমি সবখানেই দিয়ে থাকি-
      ''নিজের পকেট মারিং হইয়া যাইবার পর উক্ত টাকা উসুলাইবার লক্ষ্যে অন্যের পকেট মারিবার প্রচেষ্টাকে ডেসটিনি বলে''
আপনার এই টপিকেও তেমন কথাই পেলাম। যা হোক ধন্যবাদ আপনাকে।
অঃটঃ বুঝলাম না, রেপু দেয়ার সিস্টেম খুইজা পাইতেছি না কেন? whats_the_matter

হায়রে রেপু দিতে পারছি না। জটিল লিখছেন

আশিকুর_নূর'এর ওয়েবসাইট

লেখাটি CC by-nc-nd 3. এর অধীনে প্রকাশিত

১৮

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

বাংলারমাটি লিখেছেন:

স্বপ্ন সেটা না, যেটা আপনি ঘুমের মাঝে দেখেন। স্বপ্ন সেটাই, যেটা আপনাকে ঘুমাতে দেয় না (ভারতের সাবেক প্রেসিডেন্ট এ পি জে আবুল কালাম)

দারুন বলেছেন। ওদেরও আসলে স্বপ্নের ঠেলায় ঘুম হয় না। ডেস্টিনির দেখাদেখি আরো হাজারো কম্পানী খুলছে প্রতিদিন। একদল আবার আছে আইটি শেখায়। এবং এদের মগজের পরিমান চায়ের চামচে আধা চামচের চাইতেও যে কম সেটা বলার অপেক্ষা রাখে না। কলেজ ও পাশ করে নাই এমন ছেলেপেলেরা মিলে সিএসই তে ৩য় বর্ষে পড়া কাউকে যখন বলে আপনি এমএস ওয়ার্ড শিখতে পারবেন, ইন্টারনেট ব্রাউজিং করতে পারবেন... হাসা উচিত না কাদা উচিত সেটাও ঠিক বুঝি না।

আল্লাহ সবাইকে সুবুদ্ধি দান করুন।

১৯

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

আজকের ঘটনা
ক্রীং ক্রীং [মোবাইল স্ক্রিনে এক ডেসটিনি পাবলিকের নাম্বার ফুটে উঠলো]
আমিঃ হ্যালো
বন্ধুঃ দোস্তো আজকের পত্রিকা দেখেছো নাকি?
আমিঃ দেখেছি হাল্কা, কেন?
বন্ধুঃ ডেস্টিনি কি করেছে দেখেছো নাকি ?
আমিঃ কেন টেলিটক কিনেছে নাকি ?
বন্ধুঃ নাহ,  বিশ্বকাপ উপলক্ষে ত্রিদেশীয় কনসার্টের স্পনসর ডেসটিনি। তাই টিকিট লাগলে কল দিও।
আমিঃ ওহ, তাই নাকি - ঠিক আছে পরে জানাবো [মনে মনে, ডেসটিনির কোন কিছুর সাথে আমি নাই]
বন্ধুঃ আরেক টা কথা , এখন একটা নতুন স্কিম এসেছে ...................................... [প্যাচাল আরো পাঁচ মিনিট চললো]

নিচে সেই বিখ্যাত নিউজ টা দিলাম

ত্রিদেশীয় কনসার্টের পৃষ্ঠপোষক ডেসটিনি

ত্রিদেশীয় কনসার্টের পৃষ্ঠপোষক ডেসটিনি গ্রুপ। তাই এই কনসার্টের নতুন নাম হয়েছে ‘ডেসটিনি গ্রুপ ট্রাইনেশন বিগ শো’। ১৮ ফেব্রুয়ারি বিকেল চারটা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত ঢাকার বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে এই কনসার্ট। এখানে অংশ নেবেন বাংলাদেশ, ভারত ও শ্রীলঙ্কার শিল্পীরা। গতকাল রোববার দুপুরে হোটেল শেরাটনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে কনসার্টের আয়োজক প্রতিষ্ঠান এটিএন ইভেন্টসের সঙ্গে ডেসটিনি গ্রুপের চুক্তি সই হয়।
চুক্তিতে সই করেন এটিএন ইভেন্টসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক কৌশিক হোসেন ও ডেসটিনি গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক রফিকুল আমিন। সংবাদ সম্মেলনে কনসার্টের লোগো উন্মোচন করা হয়।
এখানে বক্তব্য দেন ডেসটিনি গ্রুপের প্রেসিডেন্ট লে. জেনারেল (অব.) হারুন অর রশিদ, ডেসটিনি ২০০০-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক রফিকুল আমিন, ভাইস চেয়ারম্যান গোফরানুল হক, বৈশাখী টেলিভিশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ও এডিটর ইন চিফ মনজুরুল আহসান বুলবুল, ওয়ালটনের পরিচালক মিজানুর রহমান, এটিএন বাংলার এভিপি তাশিক আহমেদ, এটিএন ইভেন্টসের প্রধান যোগাযোগ কর্মকর্তা ফারজানা আরমান।
http://www.prothom-alo.com/detail/date/ … ews/129566

লেখাটি LGPL এর অধীনে প্রকাশিত

২০

Re: ডেস্টিনিতে ৫ ঘন্টা

এখনতো ইহা ডেস্টিনি নহে ইহা বিখ্যাত d2k.নাম বদলাইলেও কাম বদলায় নাই।হায় ডেসটিনি। ghusi

seeming is being