টপিকঃ রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের কাজ এগিয়ে চলেছে

যে কোনো দেশের জন্যই বিদ্যুৎ এক বড় প্রয়োজন। বস্তুত বিদ্যুৎ ছাড়া শিল্পের বিকাশ দূরের কথা, স্বাভাবিক জীবনযাপন করাও অসম্ভব। একটি উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে বাংলাদেশের জন্য বিদ্যুৎ আরও বেশি প্রয়োজন। ২০৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে উন্নত দেশের তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করার যে স্বপ্ন দেখছি আমরা, সেই স্বপ্ন পূরণে বিদ্যুতের রয়েছে এক বড় ভূমিকা। প্রধানমন্ত্রীর অগ্রাধিকার প্রকল্প রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পটির কাজ দ্রুত গতিতে এগিয়ে চলেছে  এবং খোদ প্রধানমন্ত্রী এই প্রকল্পের দেখভাল করছেন। নির্ধারিত সময়ের মধ্যেই শেষ হয়েছে ৫ হাজার ৮৭ কোটি টাকা ব্যয়ে প্রকল্পের প্রথম পর্যায়ের কাজ। শুরু হয়েছে দ্বিতীয় পর্যায়ের মহাযজ্ঞ। অক্টোবরে উদ্বোধন করা হবে প্রকল্পের মূল স্থাপনার রিঅ্যাক্টিভ বিল্ডিং নির্মাণের কাজ। প্রকল্পটি শেষ হলে দুই ইউনিটের এই বিদ্যুৎ কেন্দ্র থেকে ২ হাজার ৪০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন সম্ভব হবে, যা এ দেশের বিদ্যুৎ চাহিদার এক বিরাট অংশ পূরণ করতে সক্ষম হবে। বিদ্যুৎ খাতে বর্তমান সরকারের একটি মাস্টারপ্ল্যান রয়েছে, এই প্ল্যানের অংশ হিসেবে ২০৩০ সালের মধ্যে দেশের বিদ্যুৎ সরবরাহের অন্তত ১০ শতাংশ পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র থেকে পাওয়ার লক্ষ্য রয়েছে। আলোচ্য প্রকল্পটির কাজ শেষ হলে সেই লক্ষ্য অর্জিত হবে। তখন থাকবে আর কোন লোড শেডিং।