টপিকঃ মেদ কমানোর ব্যায়াম

যোগব্যায়ামে জানু শিরাসন বলেএকটা আসন রয়েছে।এর চর্চায় বেশ উপকার পাওয়া যায়। বাংলাদেশ ইয়োগা অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মো. হারুন ‘জানু শিরাসন’ আসনটি করার পরামর্শ দেন। আপনি নিজে নিজে ঘরে বসে করতে পারেন এ আসনটি।

পদ্ধতি [ছবি সহ এখানে]
 প্রথমে দুই পা সোজা করে সামনে ছড়িয়ে বসুন।
 দুই পায়ের বুড়ো আঙুল পরস্পর একসঙ্গে লাগান এবং আঙুলগুলো সামনের দিকে ফিরিয়ে রাখুন।
 বাম পা হাঁটুতে ভেঙে শরীরের ভেতরের দিকে নিয়ে আসুন। এ সময় আপনার বাম হাঁটু বাম দিকে ফেরানো থাকবে, বাম পায়ের সম্পূর্ণ পাতা ডান ঊরুর ভেতরের দিকে লেগে থাকবে। বাম পায়ের বাইরের দিকের সম্পূর্ণ অংশ মাটির সঙ্গে লেগে থাকবে। এ অবস্থায় দুই পায়ের মধ্যে কোণ হবে সমকোণের চেয়ে বড়।
 এবার দুই হাত শরীরের দুই পাশ দিয়ে দম নিতে নিতে মাথার ওপর সোজা করে তুলুন। এ সময় তালু পরস্পর লেগে থাকবে।
 লম্বা করে দম নিন।
 দম ছাড়তে ছাড়তে কোমরের ওপরের অংশ সামনের দিকে নামান।
 দুই হাত দিয়ে ডান পায়ের গোড়ালি চেপে ধরুন। দম ছাড়তে ছাড়তে কনুই দুটো ভেঙে দুই পাশে যতখানি দরকার, তা ছড়িয়ে দিয়ে মাথা সামনের দিকে নিতে হবে। তারপর মাথা নিচু করে কপালটা ডান পায়ের হাঁটুতে ঠেকান।
 এবার দম স্বাভাবিক রেখে এই অবস্থায় ৩০ সেকেন্ড থাকুন।
 নিঃশ্বাস নিতে নিতে ধীরে ধীরে সোজা হয়ে বসুন।
 দম ছাড়তে ছাড়তে দুই হাত শরীরের দুই পাশে নামিয়ে আনুন।
 বাম পা সোজা করুন।
 একইভাবে বিপরীত দিকে করুন। এখন ৩০ সেকেন্ড শবাসনে বিশ্রাম নিন।
 এভাবে তিনবার করুন।
উপকারিতা: এই আসনে অগ্নাশয়ে চাপ পড়ায় অগ্নাশয় সবল ও সক্রিয় হয়। সেখানে ইনসুলিন নিঃসরণ বাড়ে। তাই ডায়াবেটিসের রোগীর জন্য খুব উপকারী এটি। এ ছাড়া পেটের সামনের অংশের অতিরিক্ত মেদ কমানো যায় এটি করে। ১০ থেকে ২২ বছরের যে কেউ এটি করতে পারেন। এতে উচ্চতা বৃদ্ধির হার বাড়ে।
খেয়াল করুন: যাঁরা হার্টের অসুখ, রক্তচাপ, শ্বাসকষ্ট বা হাঁপানি ইত্যাদি সমস্যার ভুগছেন, তাঁরা চিকিৎসকের পরামর্শ ছাড়া যোগব্যায়ামটি অভ্যাস করবেন না।

ছবি সহ এখানে

স্বাস্থ্য বাংলা, আপনার পাশে সব সময়।

Re: মেদ কমানোর ব্যায়াম

ছবি একজায়গায় দেখবো আর বর্ণনা অন্য জায়গায় waiting

Rhythm - Motivation Myself Psychedelic Thoughts

লেখাটি CC by 3.0 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: মেদ কমানোর ব্যায়াম

ভাইরে, আপনার লিংকেওতো দেখলাম মাত্র একটা ছবি আছে।  shame

এখনো অনেক অজানা ভাষার অচেনা শব্দের মত এই পৃথিবীর অনেক কিছুই অজানা-অচেনা রয়ে গেছে!! পৃথিবীতে কত অপূর্ব রহস্য লুকিয়ে আছে- যারা দেখতে চায় তাদের নিমন্ত্রণ।

Re: মেদ কমানোর ব্যায়াম

ভাইজান, ছবিগুলো কি এখানে দিলে ভাল হত না?

Re: মেদ কমানোর ব্যায়াম

আসলেই তো......... ফোরামে পোষ্ট করছেন বিস্তারিত এখানেই জানাবেন দয়া করে.........
অনেকেই মডেম ব্যবহার করে ....... এক জায়গা হতে অন্য জায়গায় গেলে একটু সমস্যাই হয় অনেকের
তাই ভাইজান ছবিগুলোও এখানে দিয়ে দিলে ভাল হতো ।

জাযাল্লাহু আন্না মুহাম্মাদান মাহুয়া আহলুহু......
এই মেঘ এই রোদ্দুর

Re: মেদ কমানোর ব্যায়াম

মেদ কমানোর জন্য এত কস্ট না করে সহজ একটা পদ্ধতি হল , কম খাওয়া তথা খিদার চাইতে কম খাওয়া এবং খাওয়ার পরপরই পানি পানের অভ্যাস ত্যাগ করে খাওয়ার শুরুতে এবং মাঝে অল্প করে পানি পান করা। খাওয়ার ৩০ মিনিট পরে পেট ভরে পানি পান করুন।  big_smile

রক্তের গ্রুপ AB+

microqatar'এর ওয়েবসাইট

লেখাটি GPL v3 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: মেদ কমানোর ব্যায়াম

microqatar লিখেছেন:

মেদ কমানোর জন্য এত কস্ট না করে সহজ একটা পদ্ধতি হল , কম খাওয়া তথা খিদার চাইতে কম খাওয়া এবং খাওয়ার পরপরই পানি পানের অভ্যাস ত্যাগ করে খাওয়ার শুরুতে এবং মাঝে অল্প করে পানি পান করা। খাওয়ার ৩০ মিনিট পরে পেট ভরে পানি পান করুন।  big_smile

ঠিক কাতার ভাই ও এইভাবে  ভুঁড়ি  কমাইতাছে  hehe

বর্তমান স্বাক্ষর দিলাম
[img]http://i.imgur.com/bF7Lr.jpg[/img]  ফেসবুকে আমি
https://www.facebook.com/rafik.topu?ref=tn_tnmn

Re: মেদ কমানোর ব্যায়াম

Mastertopu লিখেছেন:

ঠিক কাতার ভাই ও এইভাবে  ভুঁড়ি  কমাইতাছে  hehe

ঘরের কথা পরে জানলো ক্যামনে big_smile

রক্তের গ্রুপ AB+

microqatar'এর ওয়েবসাইট

লেখাটি GPL v3 এর অধীনে প্রকাশিত

Re: মেদ কমানোর ব্যায়াম

সফল ভাবে ওজন কমাতে হলে আপনাকে কতগুলো কাজ একসাথে করতে হবে। যথা আদর্শ ডায়েটিং, শরীরের ধরণ অনুযায়ী উপযুক্ত বেয়াম চিকিৎসা ব্যবস্থা। উদাহরণ স্বরুপ বলা যায় বিখ্যাত গায়ক আদনান সামি। তিনি এই সবগুলো কাজ চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী পালন করার ফলেই আজকে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে এসেছেন। তাই বলবো যদি সত্যি ওজন কমাতে চান তাহলে বিষেষজ্ঞ চিকিৎসক বা ডার্মাটোলোজিস্টের পরামর্শে উক্ত কাজগুলো অনুসরণ করুন। আপনাদের সাবার সুবিধার্ধে একটি লিংক দেয়া হলো http://lasermedicalbd.com/index.htm  । যেখানে আপনি পাবেন এধরণের সব আধুনিক চিকিৎসা সেবা। অন্যথায় আপনাদের পরিচিত বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ গ্রহণ করুন যদি সত্যি আপনার ওজন কমাতে চান।