সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন Shoumik (০৭-০৯-২০১৫ ১৪:৫৬)

টপিকঃ অবসরের কাগজামি

অবসর সময় যাপনের জন্য একসময় কাগজ,রং আর আনুষঙ্গিক ফেলনা জিনিস নিয়ে করা অনুর্বর মস্তিষ্কের বাহাদুরির কতিপয় দৃষ্টান্ত।
১.অফসেটে আঁকা ফুলের টব, ব্যবহার করা হয়েছে কাগজ আর রংপেন্সিল।
http://i67.fastpic.ru/big/2015/0907/42/aaab705d4d4d5e441234ae5761abe742.jpg

২.ফ্রেমিং করা চিত্র মনে হলেও আসলে তা নয়,অফসেট পেপারে বর্ডারিং করে এভাবেই রংপেন্সিলে পুরোটা হাতেই আঁকা।
http://i65.fastpic.ru/big/2015/0907/b4/09f99fb139a88a714012315c44eae0b4.jpg

৩.ওষুধের বিজ্ঞাপনের লিটারেচার মুড়িয়ে তার উপর ক্যালেন্ডারের কাগজ আঠা দিয়ে জুড়ে টবের মত আকৃতি করে চারপাশে কাগজ কেটে কুচি করে  স্কচটেপে এঁটে দিয়ে চারপাশে জুড়ে দেয়া হয়েছে।
মাঝের ফুল আর পাতা এঁটে দেয়া হয়েছে।মাঝের ডালটি ঝাড়ুর সলায় কাগজ মুড়ে লাগিয়ে,কাগজে ফুল, পাতা এঁকে আঠা দিয়ে জুড়ে দেয়া হয়েছে।
http://i67.fastpic.ru/big/2015/0907/7d/8af9331b8aae0ec44a1c07c2e92adf7d.jpg

৪. খালি টিস্যুর বক্সে নকশা আঁকা কাগজ এঁটে দু কোনায় ব্লেড দ্বারা ছেঁচে শক্ত লিটারের কাগজ বসানো হয়েছে।তারপর লাল,নীল,সবুজ রং করা একটার পর একটা করে কাগজ জোড়া দিয়ে গাছের আকৃতি করে বানানো শোপিস।
http://i66.fastpic.ru/big/2015/0907/68/c3ffe9008b81ae7df0ea6316013f6368.jpg

৫.শখ করে ভ্যালেন্টাইন ডে তে বানানো কার্ড। ভেতরের টুকু হাতে আঁকা। আর চারপাশে একটি সবুজ কমলাভ ব্যাকগ্রাউন্ড সাইমেরা অ্যাপে ব্লার করে পিক্সআর্ট অ্যাপে স্টিকার বসিয়ে করা।
http://i71.fastpic.ru/big/2015/0907/31/519584e023f8a248c0b5062bb34de931.jpg

Re: অবসরের কাগজামি

৪ নাম্বারটা অনেক সুন্দর smile

   নেই, আছে এবং নৈবচ নৈবচ . . . . .
   দেশ, দশ, দুনিয়া তথা বিশ্ব ব্রম্মান্ড হইতে নহে ষাইফ ঋাষেল আপাতত ফেসবুক হইতে আনা গাইয়েবুন

Re: অবসরের কাগজামি

বাহ অনেক সুন্দর হাতের কাজ  clap

এক টুনিতে টুনটুনালো সাত রানির নাক কাঁটালো

Re: অবসরের কাগজামি

অনেক সুন্দর হয়েছে

Re: অবসরের কাগজামি

সব কটাই সুন্দর হয়েছে।  love

এখনো অনেক অজানা ভাষার অচেনা শব্দের মত এই পৃথিবীর অনেক কিছুই অজানা-অচেনা রয়ে গেছে!! পৃথিবীতে কত অপূর্ব রহস্য লুকিয়ে আছে- যারা দেখতে চায় তাদের নিমন্ত্রণ।

Re: অবসরের কাগজামি

অসম্ভব সুন্দর হয়েছে +

জাযাল্লাহু আন্না মুহাম্মাদান মাহুয়া আহলুহু......
<script type="text/javascript" src="http://www.golpokobita.com/embeds/baaaE6.js?layout=hori&h=360&w=567"></script>

Re: অবসরের কাগজামি

RUSSEL13 লিখেছেন:

৪ নাম্বারটা অনেক সুন্দর smile

ধন্যবাদ ভাইয়া  smile

RubaiyaNasreen(Mily) লিখেছেন:

বাহ অনেক সুন্দর হাতের কাজ  clap

ধন্যবাদ আপু সবসময় সাথে থাকার জন্য smile

mahmud7 লিখেছেন:

অনেক সুন্দর হয়েছে

ধন্যবাদ।সাথে থাকুন।

মরুভূমির জলদস্যু লিখেছেন:

সব কটাই সুন্দর হয়েছে।  love

ধন্যবাদ প্রিয় দস্যু ভাইয়া। smile

ছবি-Chhobi লিখেছেন:

অসম্ভব সুন্দর হয়েছে +

অনেক ধন্যবাদ আপু মন্তব্য, সম্মাননা আর সবসময় পাশে থাকার জন্য।

Re: অবসরের কাগজামি

thumbs_up ভালোই বানাইছেন!!

এইবার। ৫ নাম্বারটার টিউটো দেন!!  dream

Re: অবসরের কাগজামি

Jol Kona লিখেছেন:

thumbs_up ভালোই বানাইছেন!!

এইবার। ৫ নাম্বারটার টিউটো দেন!!  dream

ভিতরের অংশটুকু হাতে আঁকা।  ফোনে ফার্স্টে ছবি তুলে রং কন্ট্রাস্ট হালকা ঠিক করছি।  Cymera অ্যাপে। তারপর গুগল থেকে দুইটা ছবি নামাইছি ব্যাকগ্রাউন্ড দেওয়ার জন্য। দুইটা ছবিই দৃশ্য। আপনি এমন ছবি নামাবেন যাতে উপরে নিচে কালারটা এমন হয় যেন আপনার আঁকা কার্ডটা উজ্জ্বলভাবে দেখা যায়। এবার Cymera এর Collage এ যাবেন। দেখবেন দুই রকম কলেজ আছে।একটা অটো ফ্রেমিং করা থাকে,আরেকটা নিজে করে নেয়া যায়। যেটায় নিজে করে নেয়া যায় সেটায় যাবেন।তারপর দুই পিক এর Collage চয়েজ করবেন। একটায় ইনসার্ট দিবেন আপনার আর্ট করা কার্ডটা। আর আরেকটা পিকের জায়গায় প্রথম ব্যাকগ্রাউন্ডটা দিবেন।তারপর সেটা ঘুরালে দেখবেন ছোট বড় হচ্ছে। তখন কার্ডটা ওই ব্যাকগ্রাউন্ডের বাউন্ডারির ভেতর নেবেন।ব্যস,এবার দেখবেন বাকি অংশ সাদা। কলেজের তিন নং অপশন টা ব্যাকগ্রাউন্ড এর। গ্যালারি থেকে পছন্দমত পিক দেবেন। অটোমেটিকালই সেটা ব্লার হয়ে যাবে।এবার চারনং অপশনে গিয়ে রাউন্ড বর্ডার আর কর্ণার ০ করুন।বানানো হলে দেখতে সুন্দর হবার জন্য প্রয়োজনমত অংশ কাট করুন।

ওটুকু করে সেভ করার পর পিক্সআর্ট অ্যাপে গিয়ে পছন্দমত স্টিকার বসিয়ে নিন ব্যাকগ্রাউন্ডে।
কাহিনী ফিনিশ। smile

১০

Re: অবসরের কাগজামি

পুস্পকথন কি থামিয়ে দিলেন?

এক টুনিতে টুনটুনালো সাত রানির নাক কাঁটালো

১১

Re: অবসরের কাগজামি

RubaiyaNasreen(Mily) লিখেছেন:

পুস্পকথন কি থামিয়ে দিলেন?

না আপি,  ভালো কথা মনে করেছেন। দিবো।

১২

Re: অবসরের কাগজামি

:$ ক্যামেরা!!  roll
দু:খিত আমি ৪ নাম্বার টা জানতে চাচ্চিলাম! শিং ওয়ালা টা!  নাম্বারিং এ গোন্ডগোল হয়ে  গেছে আমার!  dontsee

১৩ সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন Shoumik (০৮-০৯-২০১৫ ১৩:০৯)

Re: অবসরের কাগজামি

Jol Kona লিখেছেন:

:$ ক্যামেরা!!  roll
দু:খিত আমি ৪ নাম্বার টা জানতে চাচ্চিলাম! শিং ওয়ালা টা!  নাম্বারিং এ গোন্ডগোল হয়ে  গেছে আমার!  dontsee

১.খালি টিস্যু বক্স নেন
২.স্কেল দিয়ে দৈর্ঘ্য প্রস্থ মাপেন
৩.তার সমান করে সাদা কাগজ কাটেন
৪.মনের মাধুরী মিশাইয়া কাগজে নকশা আঁকেন
৫.আঠা দিয়ে লাগায় দেন বক্সের সাথে
৬.নিচের অংশটুকু (পার্শ্ব) অংশেও চাইলে একি কায়দায় নকশা করে কাগজ লাগান, নকশা না করতে চাইলে সাদা কাগজই লাগায় দেন।
৭.উপরিভাগে যেখানে আঠা দিয়ে নকশা লাগাইছেন, ওটা শুকিয়ে গেলে খুব সাবধানে দুইপাশে সূক্ষ্মভাবে কাগজ ভিতরে ঢুকানো যায় এমনভাবে ছেঁচে নিন(একটু মোটা কাগজ যেমন প্যাডের মলাট বা ওষুধের লিটারেচার)
৮.ব্যাস এইবার লাল,নীল,সবুজরঙা কাগজ ওই কাগজের সাথে লাগাতে লাগাতে,পরে একটার সাথে আরেকটা কাগজ আঠা দিয়ে লাগিয়ে গাছের আকৃতি বানান।
৯.যদি গাছটা পিছন দিকে বাঁকিয়ে তাহলে পিছন দিক থেকে ঠেসমূলের মত আরেকটা শক্ত কাগজের সাথে পেছন দিক থেকে সামান্য একটু স্কচটেপ লাগায় দেন।আর না বাঁকালে তো হয়েই গেল।
ফিনিশ.........

১৪

Re: অবসরের কাগজামি

ধন্যবাদ! thumbs_up

আমি চেস্টা করে দেখব।  দেখি এক্সপ্লোশন বক্সে দেয়া যায় নাকি। এক এক্সপ্লোশন বক্স বাইনাতে গিয়া আমার দুই মাস শেষ হইয়া যাইতেছে  roll  সময় নিয়ে, আগ্রহ নিয়ে বসাই হইতেছে না। একটা না একটা কিছু মিসিং থাকেই কাজের টাইমে waiting

১৫ সর্বশেষ সম্পাদনা করেছেন Shoumik (০৮-০৯-২০১৫ ১৩:৩৯)

Re: অবসরের কাগজামি

Jol Kona লিখেছেন:

ধন্যবাদ! thumbs_up

আমি চেস্টা করে দেখব।  দেখি এক্সপ্লোশন বক্সে দেয়া যায় নাকি। এক এক্সপ্লোশন বক্স বাইনাতে গিয়া আমার দুই মাস শেষ হইয়া যাইতেছে  roll  সময় নিয়ে, আগ্রহ নিয়ে বসাই হইতেছে না। একটা না একটা কিছু মিসিং থাকেই কাজের টাইমে waiting

ওয়েলকাম  clap

আমি আর্ট অত বুঝি না,শিখিও নাই। আপনি তো এইসব ব্যাপারে  সেইরকম এক্সপার্ট। কি বানাতে কি লাগে তাও বলতে পারবোনা। ফ্রি ছিলাম যখন, হাতের সামনে যা পাইছি, মাথায় আইডিয়া আসলে ট্রাই করতাম এই আর কি।

১৬

Re: অবসরের কাগজামি

আমি এক্সপার্ট না hmm
অই শখের বসে বানাই আর কিছু না। আর্ট মার্ট আমিও শিখি নাই :3 এত ভালা হইলে ত হইছিল!  sad